কবে চালু হবে কালীগঞ্জের ফায়ার সার্ভিস স্টেশনটি ?

এক বছর আগে নির্মিত ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জের ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অফিসের নির্মাণ কাজ শেষ হলেও আজও তা চালু হয়নি। ২০০৯ সালে মোবারকগঞ্জ চিনি কলের সামনে ফায়ার সার্ভিস অফিসটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়ে ২০১০ সালে তা শেষ হয়।

খোজ নিয়ে জানাগেছে, ঝিনাইদহের মেসার্স ইঞ্জিনিয়ার বিল্ডার্স নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ২০০৯ সালে গণপূর্ত বিভাগ থেকে ১ কোটি ১৪ লাখ টাকার টেন্ডারের মাধ্যমে মোবারকগঞ্জ চিনি কলের সামনে ফায়ার সার্ভিস অফিসটির নির্মাণ কাজ শুরু করে। ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের মোবারকগঞ্জ চিনিকলের সামনে নির্মাধীন ফায়ার সার্ভিস অফিসের কাজ ২০১০ সালে শেষ হয়। অর্থ বরাদ্দ না পাওয়ায় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানটি তা হস্তান্তর করতে পারছে না। যার কারণে সরকারি এ অফিসটি আজ পর্যন্ত উদ্বোধন হয়নি।

ইঞ্জিনিয়ার বিল্ডার্সের ঠিকাদার ফারুক হোসেন জানান, কাজটি পাবার পর যথা সময়ে ফায়ার সার্ভিস অফিসের নির্মাণ কাজ শেষ করেছি। কিন্তু কাজের এখনো ৩৫ লাখ টাকা পাওনা আছে। অর্থ বরাদ্দ না দেয়ায় ফায়ার সার্ভিস অফিসটি হস্তান্তর করা সম্ভব হচ্ছে না।

উলে­খ্য ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ একটি গুরুত্বপূর্ণ উপজেলা। এখানে বিভিন্ন অফিস আদালত থাকলেও দীর্ঘদিন ফায়ার সার্ভিস অফিস ছিল না। বর্তমানে ফায়ার সার্ভিস অফিসের নির্মাণ কাজ শেষ হলেও কবে এর উদ্বোধন ও কার্যক্রম শুর“ হবে তা কেউ জানে না।

উলে­খ্য গত কয়েক বছর ধরে কালীগঞ্জ উপজেলার রায়গ্রাম, দুলালমুন্দিয়া, গোপালপুরসহ বেশ কয়েকটি গ্রামের পানের বরজে একের পর এক আগুন লেগে কোটি কোটি টাকার ক্ষতিসাধন হয়েছে। কালীগঞ্জবাসীর দীর্ঘদিনের দাবী ছিলো একটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের।

অবশেষে ফায়ার সার্ভিস স্টেশনটি স্থাপিত হলেও আজও তার উদ্বোধন হয়নি। তাই বড় দুর্ঘটনা প্রতিরোধে কালীগঞ্জবাসী ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অফিসটির উদ্বোধন ও কার্যক্রম দ্র“তভাবে সম্পন্নের জন্য সংশিষ্ট কর্তৃপক্ষর সু-দৃষ্টি কামনা করেছেন।

ইউনাইটেড নিউজ ২৪ ডট কম/শাহারিয়ার রহমান রকি/ঝিনাইদহ

Print Friendly, PDF & Email
0Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মহাখালীর সাততলা বস্তিতে আগুন

ডেস্ক রিপোর্ট: রাজধানীর মহাখালীতে সাততলা বস্তীতে আগুন লেগেছে। আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে ...