১০ দিনে ১ হাজার শয্যার হাসপাতাল নির্মাণ করেছে চীন

স্টাফ রিপোর্টার :: করোনাভাইরাস আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য মাত্র ১০ দিনে ১ হাজার শয্যার একটি বিশেষায়িত হাসপাতাল নির্মাণ করেছে চীন। সোমবার থেকে এক হাজার শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালটিতে কার্যক্রম শুরু হচ্ছে।

গত ২৪ জানুয়ারি থেকে হুবেই প্রদেশের উহানে হাসপাতালটি হাসপাতাল নির্মাণের কাজ শুরু হয়। রোববার এই হুওশেনশান হাসপাতাল নির্মাণ সম্পন্ন হয়।

এই হাসপাতালে নতুন করোনাভাইরাস সংক্রমণে আক্রান্তদের চিকিৎসা দেওয়া হবে। সোমবার থেকে স্বাস্থ্যকর্মী ও চিকিৎসা সামগ্রী পাঠাচ্ছে কর্তৃপক্ষ।

চীনের সশস্ত্র বাহিনীর এক হাজার ৪০০ মেডিকেল কর্মী হাসপাতালটিতে কাজ করবে। এই মেডিকেল কর্মীদের মধ্যে ৯৫০ জন চীনের গণমুক্তি ফৌজের (পিএলএ) জয়েন্ট লজিস্টিক সার্পোট ফোর্সের বিভিন্ন হাসপাতালের সঙ্গে যুক্ত ছিল। বাকি ৪৫০ জনকে পিএলএ-র সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী ও বিমান বাহিনীর মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়গুলো থেকে নিয়ে আসা হয়েছে।

উহানে ভাইরাস সংক্রমণে আক্রান্তের সংখ্যা ৪৯৫ থেকে ৪১০৯ জনে দাঁড়ায়। এতে উহানের হাসপাতালগুলোতে প্রচণ্ড চাপ সৃষ্টি হয়। হাসপাতালগুলোতে প্রয়োজনীয় শয্যা না থাকায় অনেক রোগীকে বাসায় রেখে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

প্রকল্প ব্যবস্থাপক ফ্যাং শিয়াং বলেন, এ ধরনের একটি প্রকল্পের জন্য এমনিতে অন্তত দুই বছর সময় লাগে। এক মাসে অস্থায়ী একটি ভবন বানানো যায়, কিন্তু সংক্রামক একটি রোগের জন্য নতুন হাসপাতাল বাননো এক রকম অসম্ভবই ছিল।

উহানের দক্ষিণপশ্চিম প্রান্তে ঝিয়িন হ্রদের কাছে একটি স্বাস্থ্যনিবাসে হাসপাতালটি তৈরি করা হয়েছে। এলাকাটি উহানের কেন্দ্রস্থল থেকে অনেকটা দূরে।

কর্তৃপক্ষ হাসপাতালের নকশা করতে পাঁচ ঘণ্টা সময় ব্যয় করে ও ২৪ ঘণ্টার মধ্যে নকশার ড্রাফট তৈরি করে। চীনের তিনটি নির্মাণ কোম্পানি যৌথভাবে হুওশেনশান হাসপাতালটি তৈরি করেছে।

সোমবার পর্যন্ত দেশটিতে প্রাণঘাতী এই ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা ৩৬০ ছাড়িয়ে গেছে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মালয়েশিয়া সিঙ্গাপুরকে ছাড়িয়ে যাবে বাংলাদেশ: অর্থমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার :: অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, ‘আমরা এখন ...