সাংবাদিকদের সাথে এডাব-এর মতবিনিময়

স্টাফ রিপোর্টার :: ‘এনজিওদের বর্তমান ও ভবিষ্যৎ ভাবনা এবং করণীয়’ বিষয়ে সাংবাদিকদের সাথে এডাব-এর এক মতবিনিময় সভা রাজধানীর আদাবরে অবস্থিত এডাব কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়।

রবিবার (২৮ জুলাই) অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতিত্ব করেন এডাব চেয়ারপারসন জয়ন্ত অধিকারী।

সভায় বর্তমান উন্নয়ন প্রেক্ষাপট এবং এডাব-এর ভুমিকা ও অবস্থান তুলেধরে বক্তব্য রাখেন এডাব পরিচালক একেএম জসীম উদ্দিন। তিনি জানান, বর্তমানে সরকারি প্রকল্পে তহবিল প্রাপ্তির ক্ষেত্রে এনজিওদের কাছে ট্রেড লাইসেন্স, আর্নেষ্ট মানি বা সলভেন্সি সার্টিফিকেট চাওয়া হয়, যা এনজিওদের কাজের ধরনের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়।

উক্ত সভায় এডাব-এর সাবেক চেয়ারপারসন ও বিশিষ্ট নারী নেত্রী রোকেয়া কবীর বলেন, বর্তমানে এনজিওদের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে এ্যাডভোকেসির ক্ষেত্রে স্থানীয় ও দেশী এনজিওদের ভূমিকা ক্রমশ ক্ষীন হয়ে আসছে। তাছাড়া এনজিও-এর জন্য নিবন্ধনকারী বিভিন্ন কর্তৃপক্ষের আইনের মধ্যে সমন্বয় না থাকায় এনজিওরা অসুবিধায় পড়ছে।

সভায় উপস্থিত সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এডাব-এর সাবেক চেয়ারপারসন আব্দুল মতিন বলেন, বর্তমানে এনজিওদের তহবিল প্রাপ্তির ক্ষেত্রে কট্রাক্ট বা সাব-কন্ট্রাক্ট পদ্ধতি উন্নয়ন সেক্টরে একটি অন্তরায়। উন্নয়ন ক্ষেত্রে এটি মোটেও শুভ লক্ষন নয়। ছোট এনজিওগুলো এখন খুব ভাল অবস্থানে নেই, দাতা প্রতিষ্ঠান ও সরকারে উচিৎ এইসব ছোট এনজিওদের প্রতি আরো সুনজর দেয়া।

সভায় সাংবাদ মাধ্যম থেকে প্রতিনিধিত্ব করেন বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা (বাসস) এর খায়রুজ্জামান কামাল, আর এস এফ-এর সেলিম সামাদ, দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিনের মুজিবুর রহমান, দৈনিক কালের কন্ঠের মারিয়া ছালাম, ডেইলি অবজারভারের শাপলা রহমান এবং মাছরাঙ্গা টেলিভিশনের জাহিদুর রহমান।

এসময় এডাব কার্যনির্বাহী পরিষদ সদস্য সুরেশ চন্দ্র হালদারসহ এডাব-এর কর্মসুচি পরিচালক কাউসার আলম কনক ও এডাব সচিবালয়ের কর্মকর্তাবৃন্দ মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here