মোহাম্মদ মাসুদ, সরাইল প্রতিনিধি ::

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলার সরাইল- নাসিরনগর, লাখাই মহাসড়কের দু’পাশে অপ্রয়োজনীয় গাছপালা গজিয়ে উঁচু জঙ্গলের সৃষ্টি হয়েছে। মহাসড়কের পাশে  ঝোপঝাড় থাকায় রাতের বেলায় প্রায়ই ঘটে ডাকাতির মতো ঘটনা। পথচারী থাকে নিরাপত্তার ঝঁকিতে। পরিবহন চালকসহ পথচারীদের মধ্যে বিরাজ করে আতঙ্ক। এমন অবস্থা সরাইল হইতে নাসিরনগর, লাখাই, সিলেট সড়ক পর্যন্ত। নিরাপদ সড়কের পরিবেশ সৃষ্টিতে অপ্রয়োজনীয় গাছ ঝোঁপঝাড় কাটার উদ্যোগ নিয়েছেন সরাইল উপজেলা প্রশাসন।

আজ সোমবার  দুপুর সরাইল উপজেলার কালিকচ্ছ ইউনিয়নের ধরন্তি পুটিয়া ব্রীজ এলাকায় প্রায় ৮ কিলোমিটার  রাস্তার দু’পাশে ঝোপঝাড় পরিস্কারের উদ্যোগ নেয়া হয়। কাজে সহযোগিতা করেন সরাইল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মেজবাহ উল আলম, সরাইল থানা সহকারী পুলিশ সুপার রাকিবুল হাসান, সরাইল থানা অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ একরামুল ইসলাম।

সরাইল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মেজবাহ উল আলম, জানান, মহাসড়কের পাশের এ জঙ্গলে রাতে অপরাধ মুলক কার্যকলাপে রয়েছে, এটা আমাদের একটা দৈনন্দিন কাজের অংশ,  তাই জঙ্গল পরিস্কার করছি।

সরাইল থানা সহকারী পুলিশ সুপার রাকিবুল হাসান জানান, ডাকাতরা বসে থাকলে বোঝার উপায় থাকে না। যে কারণে প্রায়ই ঘটে ডাকাতির ঘটনা। ইতোমধ্যে প্রায় ১ কিলোমিটারের মতো জঙ্গল পরিষ্কার করা হয়েছে। বাকিটাও তাড়াতাড়ি শেষ হবে।

অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ একরামুল ইসলাম বলেন, রাতের বেলায় ডাকাতি ঠেকাতে প্রশাসনের সদস্যরা আপ্রাণ চেষ্টা করে যাচ্ছেন। অনেক সময় রাতের টহল পুলিশেরও নিরাপত্তা থাকে না। ফলে মহাসড়কের দু’পাশের জঙ্গল কেটে পরিষ্কার করার একটা ভালো উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here