ব্রেকিং নিউজ

‘সফল উদ্যোক্তারাই গড়বে ডিজিটাল বাংলাদেশ’

স্টাফ রিপোর্টার :: তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহ্‌মেদ পলক, এমপি বলেছেন, সরকার চায় তরুণ উদ্যোক্তারা শুধু চাকরির পেছনে না ছুটে সফল উদ্যোক্তা হবে। একজন উদ্যোক্তা সফল হলে বহু কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। সেজন্য সরকার প্রযুক্তি নির্ভর তরুণ উদ্যোক্তা তৈরিতে সহায়তা দেবে। ২০২১ সালের মধ্যে এক হাজার স্টার্টআপ তৈরিতে সরকার সহায়তা করবে। সফল উদ্যোক্তারাই গড়বে ডিজিটাল বাংলাদেশ।

মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) রাজধানীর বাংলাদেশ কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশনে ‘বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি তরুণ উদ্যোক্তা পৃষ্টপোষক’ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি উপস্থিত ছিলেন গ্রামীনফোনের সিইও মাইকেল প্যাট্রিক ফোলি। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির চেয়ারম্যান কাজী জামিল আজহার। এ অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন, সিইও, ইউএস মার্কেট এক্সেস, ক্রিস বারি। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন, স্টার্টআপ অ্যাকসেলারেটর, বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির উপদেষ্টা টিনা জাবীন।

অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী বলেন, দেশের সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে স্টার্টআপ হিসেবে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি প্রথম আত্মপ্রকাশ করেছে। এরপর হয়ত ১৫০টি ইউনিভার্সিটি স্টার্টআপ নিয়ে আসবে, কিন্তু বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির মতো প্রথম হতে পারবে না। বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির স্টার্টআপ থেকে হয়ত ভবিষ্যতে মিলিয়ন, বিলিয়ন ডলারের স্টার্টআপ তৈরি হবে। বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি এর আগে থ্রি-ডি প্রিন্টার, ই-হার্ট, নাগরিকের মতো জনকল্যাণমুখী অ্যাপ তৈরি করে প্রশংসা কুড়িয়েছে। তিনি বাংলাদেশে ইউনিভার্সিটিতে ল্যাব করে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। একই সাথে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি স্টার্টআপকে ৩১তম স্টার্টআপ হিসেবে অর্ন্তভূক্ত করার ঘোষণা দেন।

বিশেষ অতিথি মাইকেল প্যাট্রিক ফোলি এ উদ্যোক্তা-পৃষ্ঠপোষক কার্যক্রমের সাথে নাগরিক সমাজের সংযোগ সাধনের উপর গুরুত্বারোপ আরোপ করে বলেন, এ ধরনের উদ্যোগ দেশকে উন্নয়নের অভীষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছাতে সহায়তা করবে।

মূল প্রবন্ধ উপস্থাপক ক্রিস বারি সিলিকন ভ্যালির দ্রুত উত্থানশীল প্রযুক্তির কথা উল্লেখ করে বলেন, আমি এ পর্যন্ত ৩৭টি দেশে ১০০টির অধিক এ ধরনের অনুষ্ঠান পরিচালনা করে উদ্ভাবক-উদ্যোক্তাদের জন্য ৬০৫ মিলিয়ন মার্কিল ডলার সংগ্রহে প্রত্যক্ষ সহায়তা করেছি। তিনি অনুষ্ঠানে উদ্যোক্তা হিসেবে সফল হওয়ার উপায়, ব্যবসা সম্প্রসারণ, মূল্যায়ন, ব্যবসায়ে লাগাতার প্রচেষ্টা ও অধ্যবসায়ের গুরুত্ব, ব্যবসা প্রদর্শনীর আয়োজন ইত্যাদি বিষয়ে অংশগ্রহণকারী উদ্যোক্তাদের বুট ক্যাম্পের মাধ্যমে প্রশিক্ষিত করার পরিকল্পনার কথা উল্লেখ করেন।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির নতুন উদ্ভাবক-উদ্যোক্তা ছাড়াও ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর, রেজিস্ট্রার, ইউএনডিপি’র প্রতিনিধি, ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্য, সকল বিভাগীয় প্রধান এবং ইউনিভার্সিটির উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

জয়ন্ত বাগচী’র বিজয় দিবসের বিশেষ কবিতা ‘জড়ায় আঁচলে বার বার’

জড়ায় আঁচলে বার বার –জয়ন্ত বাগচী  কেন  প্রশ্নেরা বার  বার   প্রশ্নের মুখে  ...