স্টাফ রিপোর্টার:: করোনার লকডাউনের সুযোগে সরকার ক্র্যাকডাউন চালাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বৃহস্পতিবার দুপুরে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, এই লকডাউনকে কেন্দ্র করে সরকার একটা ক্র্যাকডাউনে নেমেছে। এই ক্র্যাকডাউনে নেমে তারা সমস্ত বিরোধী দলের নেতাকর্মী, আমাদের দলের নেতাকর্মী, অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী, অন্যান্য সংগঠনের নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করছে, হয়রানি করছে, মিথ্যা মামলা দিচ্ছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, আজকের এই সংবাদ সম্মেলনের মধ্য দিয়ে আহ্বান জানাচ্ছি অবিলম্বে আমাদের নেতাকর্মীদের মুক্তি দিন এবং তাদের বিরুদ্ধে যে মিথ্যা মামলা দেওয়া হয়েছে তা প্রত্যাহার করুন। দেশে একটা গণতান্ত্রিক পরিবেশ সৃষ্টি করুন, গণতান্ত্রিক স্পেস তৈরি করুন। অন্যথায় এর খেসারত আপনাদের অবশ্যই দিতে হবে। জনগণের কাছে তার দায়-দায়িত্ব আপনাদের বহন করতে হবে।

২৬ মার্চে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর দিন থেকে বিভিন্ন ঘটনার প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার যারা জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয়, তারা রাষ্ট্রযন্ত্রকে ব্যবহার করছে, বিশেষ করে পুলিশ বাহিনীকে ব্যবহার করে ঢাকা, চট্টগ্রাম, ব্রাক্ষণবাড়িয়াসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় অসংখ্য মিথ্যা মামলা দিয়ে আমাদের নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করতে শুরু করেছে।

সরকার হেফাজতে ইসলামকে নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ হয়ে বিএনপির ওপর নির্যাতন বাড়াচ্ছে কিনা জানতে চাইলে বিএনপি মহাসচিব বলেন, সরকারের লক্ষ্য হচ্ছে একটা কর্তৃত্ববাদী এক দলীয় সরকারকে পুরোপুরিভাবে প্রতিষ্ঠা করা। সেই লক্ষ্যে তারা সবার উপরে নিপীড়ন-নির্যাতন চালাচ্ছেন যাতে করে কোনো বিরোধীকন্ঠ উচ্চারিত না হয়, ভিন্ন মত না আসে-এটাই হচ্ছে তাদের প্রধান লক্ষ্য।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here