ইউনাইটেড নিউজ ২৪ ডেস্ক :: স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন রোগী ও ডাক্তার উভয়কেই সুরক্ষা দেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

তিনি বলেন, রোগী যাতে যথাযথ চিকিৎসাসেবা পায় সেটা দেখা যেমন সরকারের দায়িত্ব তেমনি ডাক্তাররাও যাতে চিকিৎসাসেবা দিতে গিয়ে সুরক্ষা পায় সেটা দেখাও তাদের দায়িত্ব।

আজ চটগ্রাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল পরিদর্শন শেষে হাসপাতালের সম্মেলন কক্ষে কর্তব্যরত ডাক্তারদের সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। আজ এক তথ্যবিবরণীতে একথা বলা হয়।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, চটগ্রাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে বিদ্যমান সকল ধরনের সমস্যার সমাধান করা হবে। এ হাসপাতালে এমআরআই মেশিন, সিটি স্ক্যান নষ্ট এটা শুনতে খারাপ লাগে। ঢাকার পর চট্টগ্রাম বাংলাদেশ দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর। তাই জরুরি ভিত্তিতে সকল সমস্যার সমাধান করার জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

মন্ত্রী প্রাইভেট হাসপাতালের উদ্দেশ্যে বলেন, একটা হাসপাতালে যদি ইমার্জেন্সি ডাক্তার না থাকে, অক্সিজেন সিলিন্ডার খালি থাকে তাহলে তারা রোগীকে কি সেবা দেবে? প্রাইভেট ক্লিনিক অবশ্যই চলবে, আমি তার বিরুদ্ধে নই। কিন্তু তাদেরকে সব নিয়মকানুন মেনে চলতে হবে।

মতবিনিময় সভায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা: আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (হাসপাতাল) ডা. আবু হোসেন মো. মঈনুল আহসান, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ তসলিম উদ্দিন, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক সাহেনা আক্তার, চট্টগ্রাম জেলার সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইলিয়াস চৌধুরীসহ চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বিভিন্ন বিভাগের প্রধানগণ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here