অনন্ত ঘুম
-রোকেয়া ইসলাম

ভাদ্রের উতপ্ত দিনটাকেই বেছে নিলাম
দীর্ঘ শীতল ঘুমের জন্য
সূর্যের আলো যতই প্রগাঢ় হোক
আজ আমি ঘুমাতে চাই
টেবিলের প্রাতরাশে আড়ি
চেনা প্লেট মগ যাই ডাকুক
তবুও উঠব না আজ
এলারামে ধুলো, জেগে ওঠার স্পর্শ ছুটিতে
দুচোখের পাতায় অনেক ভার- বাড়াবাড়ি…

হুইসেল বেজে ব্যস্ত নীল অনল
কেতলীতে আটপৌরে জল
থরে থরে সাজানো কাপ পিরিচ
অদম্য নিবির ঘুমে বিভোর
সুগন্ধি সাথে নিয়ে গোলাপ ফুটুক কি ঝরে পড়ুক
তাতে কি আসে যায়?
প্রস্ফুটিত মর্নিং গ্লোরী রোদের তাপে
গুটিয়ে নিক লাবণ্য সূধা
বড্ড ঘুম পায়…

জল জোছনার এক ঘর যাপন ষড়ঋতুর খতিয়ান
কে যেন একদিন ডেকেছিল দূরে সবুজের আহ্বানে
সব রইলো পেছনে পড়ে
আজ আমি ঘুমাব, ঘুমাব, ঘুমাব
অপার শান্তিতে মাটির বিছানা নিশ্চুপ
ঘাসের আমন্ত্রণে ভুল মেরে আছে
নিপাট ঘর দোর, লেখার কাগজ আর ফুলেল ছাদ বাগান…

বাজুক সেলফোন, কলিং বেল বা হাত ফসকে ভাঙা কাঁচের গ্লাস
ঘুমের কোন বিঘ্ন হবে না তাতে
এমন নিশ্চিত ঘুম বহুদিন আসেনি
দুচোখের পাতা জুড়ে
রোদ মেঘের ফুল পাখি গল্প বানোয়াট
বুক থেকে বেড়িয়ে যায় দীর্ঘশ্বাস, নিঃশ্বাস…

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here