রামগতিতে চিরনিদ্রায় সাংবাদিক আ. হ. ম ফয়সল জুনাইদ আল হাবিব: লক্ষ্মীপুরে রামগতিতে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন ঢাকার সাংবাদিক নেতা ও উন্নয়নকর্মী আ.হ.ম ফয়সল। শনিবার (১লা মে) বাদ যোহর রামগতি উপজেলা সংলগ্ন প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে তার জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় জানাজায় অংশ নেন রামগতি পৌর মেয়র মেজবাহ উদ্দিন মেজু, ডরপের কর্মকর্তাগণ, রামগতি ও কমলনগরের সাংবাদিকগণ এবং বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ। জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। এর আগে তিনি কক্সবাজারের উখিয়াতে বোনের বাসায় হৃদরোগে আক্রান্ত হন। পরে হাসপাতালে চিকিৎসারত অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স ছিল ৪১বছর। আ.হ.ম ফয়সল বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ডরপ'র মিডিয়া ম্যানেজার, ঢাকা সাব-এডিটরস কাউন্সিলের নির্বাহী সদস্য এবং ইউনাইটেড নিউজের সম্পাদক। গ্রামের বাড়ি লক্ষ্মীপুরের রামগতির চর আলেজান্ডারে রামগতি উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে, মা-বাবা, স্বজন-প্রতিবেশীসহ অসংখ্য শুভাকাঙ্ক্ষী রেখে যান। তার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে পরিবার থেকে বিভিন্ন পর্যায়ে। শোক জানিয়েছেন ঢাকায় অবস্থানরত সাংবাদিকরাও। ব্যক্তিগত জীবনে আ.হ.ম ফয়সল একজন উন্নয়নকর্মী ও সাংবাদিক। নিজ এলাকায় সাংবাদিকতার পর যুক্ত হন ঢাকার সাংবাদিকতায়। পরিচিত হন দেশজুড়ে। মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া চেয়েছেন তার স্বজন, বন্ধু-বান্ধবরা।
জানাজায় মানুষের ঢল

জুনাইদ আল হাবিব: লক্ষ্মীপুরে রামগতিতে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন ঢাকার সাংবাদিক নেতা ও উন্নয়নকর্মী আ.হ.ম ফয়সল। শনিবার (১লা মে) বাদ যোহর রামগতি উপজেলা সংলগ্ন প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে তার জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় জানাজায় অংশ নেন রামগতি পৌর মেয়র মেজবাহ উদ্দিন মেজু, ডরপের কর্মকর্তাগণ, রামগতি ও কমলনগরের সাংবাদিকগণ এবং বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ। জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।

এর আগে তিনি কক্সবাজারের উখিয়াতে বোনের বাসায় হৃদরোগে আক্রান্ত হন। পরে হাসপাতালে চিকিৎসারত অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স ছিল ৪১বছর।

আ.হ.ম ফয়সল বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ডরপ’র মিডিয়া ম্যানেজার, ঢাকা সাব-এডিটরস কাউন্সিলের নির্বাহী সদস্য এবং ইউনাইটেড নিউজের সম্পাদক। গ্রামের বাড়ি লক্ষ্মীপুরের রামগতির চর আলেজান্ডারে রামগতি উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন।

মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে, মা-বাবা, স্বজন-প্রতিবেশীসহ অসংখ্য শুভাকাঙ্ক্ষী রেখে যান। তার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে পরিবার থেকে বিভিন্ন পর্যায়ে। শোক জানিয়েছেন ঢাকায় অবস্থানরত সাংবাদিকরাও।

ব্যক্তিগত জীবনে আ.হ.ম ফয়সল একজন উন্নয়নকর্মী ও সাংবাদিক। নিজ এলাকায় সাংবাদিকতার পর যুক্ত হন ঢাকার সাংবাদিকতায়। পরিচিত হন দেশজুড়ে।

মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া চেয়েছেন তার স্বজন, বন্ধু-বান্ধবরা।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here