মোঃ আজিজুর রহমান ভূঁঞা বাবুল, ময়মনসিংহ প্রতিনিধি ::

ময়মনসিংহে প্রেমের টানে পালিয়ে বেড়ানো প্রেমিকা মেয়ের স্বজনদের আগুনে পুড়ে প্রেমিক ছেলের মা লাইলী বেগম (৩৮)’র মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (২৮ জুন) সন্ধ্যায় রাজধানীর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।এ ঘটনায় রাতে দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ।

ময়মনসিংহের কোতোয়ালি মডেল থানার (ওসি) শাহ কামাল আকন্দ জানান, ময়মনসিংহ সদর উপজেলার চর ঈশ্বরদিয়া গ্রামের আব্দুর রশিদের ছেলে সিরাজুলের (২০) সঙ্গে প্রতিবেশী কাজল ওরফে খোকার মেয়ে খুকির (১৮) প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। দু’জনের পরিবার মেনে না নেওয়ায় সিরাজুল ও খুকি গত ২৬ জুন বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যায়।

বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়রা মীমাংসার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। মঙ্গলবার সকাল ৯টার দিকে প্রতিবেশী কামালের স্ত্রী নাসরিন (৩৮), মেয়ের মা আছিয়া আক্তার কনা (৩৬) ও জাহাঙ্গীরের স্ত্রী আছমা ছেলের মা লাইলীর শরীরে আগুন ধরিয়ে দেন। পরে স্থানীয়রা লাইলীকে অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে পাঠানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যায় লাইলী মারা যান।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় নিহতের স্বামী বাদী হয়ে আটজনকে আসামি করে মামলা করেছেন। মরদেহ ঢাকা থেকে আনার প্রক্রিয়া চলছে। এ ঘটনায় জড়িত দুইজনকে আটক করা হয়েছে। দোষীদের ধরতে অভিযান চলছে।

 

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here