সামিন আরহাম , স্পোর্টস ডেস্ক :: টপ অর্ডার ব্যাটাররা ফর্মে ফেরার পথে থাকায় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে খেলার ভাল সুযোগ এখনও আছে বলে মনে করেন বাংলাদেশ অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত।

বৃষ্টি আইনে আজ অস্ট্রেলিয়ার কাছে ২৮ রানে হেরে সুপার এইট পর্ব শুরু করে বাংলাদেশ। সুপার এইট পর্বে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে অ্যান্টিগার স্যার ভিভিয়ান রিচার্ডস স্টেডিয়ামে ভারতের বিপক্ষে ঘুড়ে দাঁড়ানোর ব্যাপারে আত্মবিশ^াসী টাইগাররা। আগামীকাল রাত ৮টা ৩০ মিনিটে শুরু হবে ম্যাচটি।

গ্রুপ পর্বে রানের জন্য লড়াই করতে হয়েছে অধিনায়ক শান্তসহ বাংলাদেশের টপ অর্ডার ব্যাটারদের। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে হারা ম্যাচে রানের দেখা পেয়েছে তারা। যা ভারতের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচের আগে বাড়তি আত্মবিশ^াস যোগাচ্ছে বাংলাদেশকে।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে তিন নম্বরে নেমে ৩৬ বল খেলে বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪১ রান করেন শান্ত। লিটন দাস ২৫ বলে করেন ১৬ রান। তাওহিদ হৃদয় ২৮ বলে ৪০ রানে ফিরলেও, মিডল ও লোয়ার অর্ডার ব্যাটারদের ব্যর্থতায় ৭ উইকেটে ১৪০ রানের বেশি করতে পারেনি বাংলাদেশ।

জবাবে ১১ দশমিক ২ ওভারে ২ উইকেটে ১শ রান করে ফেলে অস্ট্রেলিয়া। এরপর বৃষ্টিতে আর খেলা না হলে শেষ পর্যন্ত ২৮ রানে হেরে যায় বাংলাদেশ।

ম্যাচ শেষে শান্ত বলেন, ‘উইকেট ভালো ছিল। কিছুটা ধীরগতির ছিলো। কিন্তু আমাদের অন্তত ১৭০ রান করা উচিত ছিল। এখন পর্যন্ত আমার সব ঠিক আছে। এখানে খেলা উপভোগ করছি এবং  আমি আরও ভালো কিছু করতে পারবো বলে মনে করছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘আজকে টপ অর্ডারের রান পাওয়াটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ ছিলো। আশা করি বোলাররা, তাদের ফর্ম ধরে রাখবে। ভারতের বিপক্ষে পরের ম্যাচে নিজেদের সেরাটা দিতে মুখিয়ে আছে তারা।’

এই ফরম্যাটে একে অপরের বিপক্ষে ১৩ ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ-ভারত। এরমধ্যে মাত্র একটি জিতেছে টাইগাররা। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে চারবার দেখা হয়েছে দু’দলের। সব ম্যাচই জিতেছে টিম ইন্ডিয়া।

পরিসংখ্যান বাংলাদেশের পক্ষে না থাকলেও, ভারতকে বিপক্ষে বেশির ভাগ ম্যাচেই আগ্রাসী ও লড়াকু ক্রিকেট খেলেছে টাইগাররা। দু’দল যখনই মুখোমুখি হয়েছে, তারা উত্তেজনাপূর্ণ এবং রোমাঞ্চকর পারফরমেন্স দেখিয়েছে। কিন্তু টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে লড়াইয়ের দিক দিয়ে ভালো অবস্থায় ছিলো ভারত।

কিন্তু বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ প্রতিবারই বাড়তি উন্মাদনা তৈরি করে, বিশেষ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এবং বাকী অন্য ক্ষেত্রে সবসময়ই ভারতকে হারানোর সুযোগ তৈরি করে টাইগাররা।

আগামীকালের ম্যাচে ভারতকে হারাতে না পারলে সেমিফাইনালের দৌড় থেকে ছিটকে যাবে বাংলাদেশ। অন্যদিকে, বাংলাদেশের বিপক্ষে জিতলে সেমিফাইনালে এক পা দিয়ে রাখবে ভারত। সুপার এইটে নিজেদের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানকে ৪৭ রানে হারিয়েছে ভারত।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে খেলে অ্যান্টিগার উইকেট সম্পর্কে ধারণা পেয়েছে বাংলাদেশ। ৪৮ ঘণ্টারও কম সময়ের মধ্যে দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে বার্বাডোজ থেকে অ্যান্টিগা যেতে হবে ভারতকে। ৪৮ ঘণ্টার কম সময়ের মধ্যে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে নামবে বাংলাদেশ। কিন্তু ভেন্যু পরিবর্তন বা ভ্রমণ করতে হবে না টাইগারদের।

বাংলাদেশ দল : নাজমুল হোসেন শান্ত (অধিনায়ক), তাসকিন আহমেদ (সহ-অধিনায়ক), লিটন দাস, সৌম্য সরকার, তানজিদ হাসান তামিম, সাকিব আল হাসান, তাওহিদ হৃদয়, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, জাকের আলি অনিক, তানভির ইসলাম, মাহেদি হাসান, রিশাদ হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান, শরিফুল ইসলাম ও তানজিম হাসান সাকিব।

ভারত দল : রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), হার্দিক পান্ডিয়া, যশস্বী জয়সওয়াল, বিরাট কোহলি, সূর্যকুমার যাদব, ঋষভ পান্থ (উইকেটরক্ষক), সঞ্জু স্যামসন, শিবম দুবে, রবীন্দ্র জাদেজা, অক্ষর প্যাটেল, কুলদীপ যাদব, যুজবেন্দ্রা চাহাল, আর্শদীপ সিং, জসপ্রিত বুমরাহ, মোহাম্মদ সিরাজ।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here