বোতলে করে বিশুদ্ধ বায়ু কিনছে চিন

বোতলে করে বিশুদ্ধ বায়ু কিনছে চিন বেজিং :: খাদ্যদ্রব্য, ওষুধ-পত্র, পোশাক-পরিচ্ছেদের মত এবার বিশুদ্ধ বায়ুও বিক্রি হচ্ছে। তাও আবার বোতলে ভরে একদেশ থেকে অন্য দেশে। দেশের জনগণও শরীর সুস্থ রাখতে এবং আয়ু বাড়াতে মহামূল্যবাণ এই বিশুদ্ধ বায়ু কিনে নিচ্ছে এক কথায়। এটা কোনও গল্প নয়, একেবারে বাস্তব। কানাডা থেকে বিশুদ্ধ বায়ু কিনছে চিন। আর সেই বায়ু ভরা বোতল কিনে নিচ্ছে চিনের অগুণতি মানুষ।

সম্প্রতি দূষণ রোধে বিশ্বের প্রায় সমস্ত দেশই একজোট হয়েছে। দূষণ ঠেকাতে এবং বিশ্ব উষ্ণায়ন রোধে প্রায় প্রতিটি দেশই বিশেষ পদক্ষেপ করছে। চিনের এরকমই একটি পদক্ষেপ হল, বিশুদ্ধ বায়ু কেনা। এক্ষেত্রে চিনকে সাহায্য করতে এগিয়ে এসেছে কানাডা। অর্থের বিনিময়ে কানাডা চিনের হাতে তুলে দিচ্ছে বিশুদ্ধ বায়ু ভর্তি বোতল। এই এক-একটি বোতলের দাম ১৮.৫০ পাউণ্ড অর্থাৎ প্রায় oxygen-bottle-56712f9433d3b_l১ হাজার ৮৫০ টাকা।

দেশের মানুষকে বিশুদ্ধ বায়ু দিতেই কানাডা থেকে বায়ু কেনা শুরু করেছে চিন। কেননা সম্প্রতি চিনে দূষণ মাত্রা অধ্যাধিক হারে বেড়ে গিয়েছে। চিনের রাজধানী বেজিংকে বিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে দূষণবহুল এলাকা হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। গত কয়েক বছর ধরে এই দূষণের জেরে বহু মানুষের মৃত্যু হয়েছে। তাই দূষণ রোধে বিশেষ তৎপর হয়েছে চিন সরকার।

সম্প্রতি বেজিংয়ে ‘রেড অ্যালার্ট’ও জারি করা হয়েছিল। বাড়ি থেকে বেরোনোর উপর নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছিল। একদিন জন্য স্কুল, অফিস, যান চলাচল, নির্মাণ কাজও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু শুধু এভাবে যে দূষণের হাত থেকে মানুষকে বাঁচানো যাবে না, তা বেজিং সরকারের অজানা নয়। তাই দেশবাসীকে দূষণমুক্ত বায়ু দিতে নতুন পথ ধরল চিন সরকার। কানাডা থেকে বিশুদ্ধ বায়ু ভর্তি বোতল কিনতে শুরু করল।

জানা গিয়েছে, প্রায় দু’মাস আগে থেকেই কানাডার থেকে বিশুদ্ধ বায়ু কেনা শুরু করেছে চিন। রকি পর্বত থেকে জীবনী শক্তিদায়ক বিশুদ্ধ বায়ু বোতলে ভরছে কানাডা। তারপর সেই বোতল ১৮.৫০ পাউণ্ড দামে চিনকে বিক্রি করছে কানাডা সরকার। তারপর চিন সরকারের থেকে বিশুদ্ধ বায়ু ভর্তি বোতল কিনে নিচ্ছে ওই দেশের মানুষ। এক-একটি বোতলে প্রায় ৭.৭ লিটার তরতাজা অক্সিজেন বায়ু রয়েছে।

এই বিশুদ্ধ বায়ু বিক্রির চিনা প্রতিনিধি হ্যারিসন ওয়াং জানান, অনলাইনের মাধ্যমে দেশবাসীর কাছে বিক্রি করা হচ্ছে জীবনী শক্তিদায়ক বায়ু ভর্তি বোতল। চারদিনে ৫০০টি বোতল বিক্রি হয়ে গিয়েছে। আরও ৭০০টি বোতল আসছে। এছাড়া আরও ৪ হাজার বোতলের অর্ডার দেওয়া হয়েছে। তাই বলা যায়, সুস্থভাবে বাঁচতে চিনের মানুষ বর্তমানে এই বোতল ভর্তি বায়ুরই শরণাপন্ন।

Print Friendly, PDF & Email
0Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

ইনজেকশন দেয়া গরু চিনবেন যেভাবে

ষ্টাফ রিপোর্টার ::ঈদুল আজহার আর মাত্র ক’দিন বাকি। ঈদুল আজহা মূলত মহান ...