মোঃ ওসমান গনি, বেনাপোল প্রতিনিধি ::
যশোরে১ (শার্শা) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী আশরাফুল আলম লিটনের নির্বাচনী প্রচারণায় হামলা চালিয়েছে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী আফিল উদ্দীনের সমর্থকরা। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার বেনাপোল স্থল বন্দর এলাকায় এঘটনা ঘটে।
হামলায় স্বতন্ত্র প্রার্থী আশরাফুল আলম লিটন, পৌরসভার প্যানেল মেয়র মন্টু, নির্বাচনী কর্মী আজিবরসহ ৬জন আহত হয়েছেন। এঘটনায় তিন জনকে জরিমানা করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নয়ন কুমার রাজবংশী।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, দুপুরে বন্দর এলাকায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর প্রচারনা করে ফেরার সময় বন্দরের শ্রমিক সরদার রাজু সরদারের নেতৃত্বে হামলা চালানো হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এলাকায় চাপা উত্তেজনা বিরাজ করছে তবে পুলশি বলছে বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।
যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) বেলাল হোসাইন বলেন, বেনাপোল বন্দরে হ‍্যাংলিক শ্রমিকদের সাথে দির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা স্বতন্ত্রপ্রার্থী আশরাফুল আলম লিটনের সমর্থকদের সংঘর্ষ বাধে। সাথে সাথে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সহকারি রিটার্নিং কর্মকর্তা আচরণ বিধি লংঘনের অভিযোগে তিন জনকে জরিমানা করেছে।
উল্লেখ্য, বন্দরে হ্যান্ডলিং টেন্ডারের দখল নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে লিটন ও আফিল সমর্থকদের মধ্যে বিরোধ, সংঘর্ষ চলে আসছে। রাজু সরদার নৌকার প্রার্থী আফিল উদ্দিনের সমর্থক।
পরে বেলা ২টার সময় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি অহিদুজ্জামান এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে সাবেক মেয়র লিটন স্বতন্ত্র প্রার্থী নির্বাচন করছেন। তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে বন্দর শ্রমিকদের উপর হামলা করেছেন। তিনি এধরণের কর্মকাণ্ড করে নির্বাচনকে বাধাগ্রস্ত করতে চাই।
Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here