নিজস্ব প্রতিবেদক:: 

বিশ্ব পর্যটন দিবস -২০২১ উদযাপনে আজ ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, সকাল ১০টায়, বাংলাদেশ ট্যুরিজম এন্ড হোটেলস ওয়ার্কার্স-এমপ্লয়িজ ফেডারেশনের উদ্যোগে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়।

ফেডারেশনের আহবায়ক রাশেদুর রহমান রাশেদ এর সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব আহসান হাবিব বুলবুল এর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত শোভাযাত্রা পুর্ব সমাবেশে বক্তব্য রাখেন এবং শোভাযাত্রার উদ্বোধন ঘোষণা করেন সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্টের
সভাপতি রাজেকুজ্জামান রতন। সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন সংগঠনের যুগ্ম আহবায়ক মহিউদ্দিন রিমেল ও মোহাম্মদ শরিফ, কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য জনার্দন দত্ত নান্টু, প্রকৌশলী ইমরান হাবিব রুমন, রাহাত আহমেদ, ঢাকা নগর কমিটির সদস্য সচিব আল-আমিন শিমুল, সুদার্শি চাকমা, ফসাল আহমেদ, নওগাঁর জয়নাল আবেদিন মুকুল, নাটোরের দেবাশিষ রায়, সিলেটের অ্যাড.জুনায়েদ আহমেদ প্রমুখ।

নেতৃবৃন্দ বলেন, ১৯৮০ সাল থেকে জাতিসঙ্ঘের বিশ্ব পর্যটন সংস্থা ২৭ সেপ্টেম্বর কে বিশ্ব পর্যটন দিবস হিসাবে পালন করে আসছে। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিগত উন্নয়নের কারণে মানুষের দৈন্দিন কাজের ধরণ শারীরিক শক্তি নির্ভরতা থেকে অনেক বেশি মানসিক দক্ষতা নির্ভর হয়ে ওঠায় মানসিক প্রফুল্লতা এবং বহুমাত্রিক বৈচিত্রের সাথে পরিচিত হওয়ার গুরুত্ব বৃদ্ধি পাওয়ার
সাথে সাথে পর্যটনের গুরুত্ব বেড়েছে। প্রাকৃত্রিক সৌন্দর্য এবং ঐতিহাসিক বহু নিদর্শনের কারণে বাংলাদেশে পর্যটন শিল্পের বিকাশের অফুরন্ত সম্ভাবনা রয়েছে। কিন্তু পর্যটন শিল্পের বিকাশের অবসম্ভাবি শর্ত দক্ষ কর্মীর সেবা। আর পর্যটন খাতে দক্ষ শ্রমের সরবরাহ নিশ্চিত করতে হলে পর্যটন কর্মীদের শ্রম অধিকার এবং মর্যদা নিশ্চিত করতে হবে।

রাষ্ট্র এবং পর্যটন শিল্পের বিনিয়োগকারীগণ এই সত্য ধারণ করেনা। শ্রমিক ছাড়া শিল্পের কি কোন অস্তিত্ব সম্ভব? নিশ্চয় নয়। পর্যটন সংশ্লিষ্ট সরকারী কর্মকর্তা আর মালিকরা শ্রমিকবিহিন এক অলিক পর্যটন শিল্পের কথা কল্পনা করেন, অলিক কখোনো বাস্তব নয়। তাই তারা পর্যটন কর্মী/ শ্রমিকদের স্বীকৃতি ছাড়ায় বিশ্ব পর্যটন দিবসের কর্মসূচী পালন করছেন।

নেতৃবৃন্দ শ্রম অধিকার আদায়ে পর্যটন শিল্পের জন্য স্বতন্ত্র মন্ত্রণালয় গঠন, শ্রম আইনে পর্যটন কর্মীদের স্বীকৃতি, পর্যটন কর্মীদের জন্য মজুরি কাঠামো নির্ধারণ, করোনাকালে ছাঁটাইকৃত পর্যটন কর্মীদের পুন:নিয়োগসহ বাংলাদেশ ট্যুরিজম এন্ড হোটেলস ওয়ার্কার্স এমপ্লয়িজ ফেডারেশনের ৭ দফা বাস্তবায়নের দাবিতে শক্তিশালি আন্দোলন গড়ে তুলতে দেশের সকল পর্যটন কর্মীকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানান।

সমাবেশ শেষে বেলুন উড়িয়ে বিশ্ব পর্যটন দিবস-২০২১ এর সফলতা কামনা করা হয় এবং একটি শোভাযাত্রা জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে থেকে শুরু হয়ে ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটি’র সামনে শেষ হয়। একই সময়ে কক্সবাজারসহ বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্রে র‌্যালি, শোভাযাত্রাসহ বিভিন্নমাত্রায় কর্মসূচী পালন করা হয়।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here