বাংলাদেশে অভিবাসী-শরণার্থী ২২ লাখ

ডেস্ক নিউজ :: বাংলাদেশে অভিবাসী-শরণার্থী মিলিয়ে ২১ লাখ ৮৫ হাজার বিদেশি আছেন। এর মধ্যে শরণার্থী ৯ লাখ ৩২ হাজার। জাতিসংঘের ‘ইন্টারন্যাশনাল মাইগ্রেশন স্টক-২০১৯’ প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে। বুধবার জাতিসংঘের অর্থনৈতিক ও সামাজিকবিষয়ক দপ্তরের (ডিইএসএ) পপুলেশন ডিভিশন ওই প্রতিবেদন প্রকাশ করে। জাতিসংঘের তথ্যমতে, চলতি বছর বিশ্বের বিভিন্ন দেশে অভিবাসীর সংখ্যা ২৭ কোটি ২০ লাখে পৌঁছেছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশি অভিবাসী আছেন ৭৮ লাখ। বিদেশে অভিবাসীর সংখ্যার দিক থেকে বাংলাদেশ বিশ্বে ষষ্ঠ স্থানে আছে। এ তালিকায় শীর্ষে আছে ভারত।

ডিইএসএর ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, আন্তর্জাতিক অভিবাসী-শরণার্থীর মোট ১ দশমিক ৩ শতাংশ রয়েছে বাংলাদেশে। বাংলাদেশে সবচেয়ে বেশি লোক এসেছে প্রতিবেশী মিয়ানমার থেকে। মূলত ২০১৭ সালের শেষদিকে মিয়ানমার সেনাবাহিনী দেশটির রাখাইন রাজ্যে হত্যাযজ্ঞ শুরু করলে সাড়ে সাত লাখের মতো রোহিঙ্গা মুসলিম পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেন।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, এক কোটি ৭৫ লাখ ভারতীয় বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাস করছে। তাদের বেশির ভাগ আছে সংযুক্ত আরব আমিরাত, যুক্তরাষ্ট্র ও সৌদি আরবে। প্রবাসীর সংখ্যায় ভারতের পর দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে মেক্সিকো। দেশটির এক কোটি ১৮ লাখ মানুষ বিদেশে থাকে। তৃতীয় অবস্থানে থাকা চীনের এক কোটি সাত লাখ, চতুর্থ রাশিয়ার এক কোটি পাঁচ লাখ, পঞ্চম সিরিয়ায় ৮২ লাখ মানুষ বিদেশে অভিবাসী হয়েছেন। সপ্তম স্থানে থাকা পাকিস্তানের ৬৩ লাখ লোক প্রবাসী। শীর্ষ দশে থাকা বাকি দেশের মধ্যে পর্যায়ক্রমে ইউক্রেনের ৫৯ লাখ, ফিলিপাইনের ৫৪ লাখ ও আফগানিস্তানের ৫১ লাখ মানুষ প্রবাসী।

অন্যদিকে, প্রবাসী আশ্রয় দেওয়ার ক্ষেত্রে শীর্ষে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে পাঁচ কোটি ১০ লাখ বিদেশি আছেন। জার্মানি ও সৌদি আরব এ ক্ষেত্রে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। দেশ দুটিতে বসবাস করছেন এক কোটি ৩০ লাখ বিদেশি। এ ছাড়া রাশিয়ায় এক কেটি ২০ লাখ, যুক্তরাজ্যে এক কোটি, আরব আমিরাতে ৯০ লাখ এবং ফ্রান্স, কানাডা ও অস্ট্রেলিয়ায় ৮০ লাখ করে বিদেশি বাস করেন। ইতালিতে রয়েছেন ৬০ লাখ প্রবাসী।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, বিদেশে যারা যান, তারা মূলত ভালো কর্মসংস্থান ও ভালো পারিশ্রমিকের জন্য যান। এ প্রবণতা ভারতীয় নাগরিকদের মধ্যেই সবচেয়ে বেশি লক্ষ্য করা যায়। এরপর বাংলাদেশ, রাশিয়া, মেক্সিকো, সিরিয়া ও পাকিস্তানি নাগরিকদের মধ্যে বিদেশে বাস করার প্রবণতা বেশি। লেখাপড়ার জন্যও এসব দেশের বহু মানুষ বিদেশে যান।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

ইয়োগা রানী ‘শ্বেওতা ওয়ার্পে’ ঢাকা আসছেন

স্টাফ রিপোর্টার :: ভারতের ‘মিস এলিট এশিয়া’ ২০১৮, ‘মিস ইন্ডিয়া গুডউইল ইন্টারন্যাশনাল’ ...