প্রধানমন্ত্রীর অনুষ্ঠানে প্রবেশ করতে না পেরে প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের ক্ষেভস্টাফ রিপোর্টার :: বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবসের অনুষ্ঠানে অটিজম প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের বাদ দিয়েই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দিবস উদযাপন করলেন বলে ক্ষোভ জানিয়েছেন প্রতিবন্ধী ব্যক্তিরা।

মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) বঙ্গবন্ধু সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবসের অনুষ্ঠানে ভেতরে প্রবেশ করতে না পেরে প্রতিবন্ধী মানুষেরা মিছিলে স্লোগানে মুখরিত করে তুলে সম্মেলন কেন্দ্রের সামনের চত্বর।

জানা যায়, সরকারি আমন্ত্রণ পত্র হাতে থাকা সত্ত্বেও আজ বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস ২০১৯ উদযাপন অনুষ্ঠানে বহু আমন্ত্রিত প্রতিবন্ধী ব্যক্তি ও তাদের অভিভাবক বঙ্গবন্ধু সম্মেলন কেন্দ্রের প্রধান ফটকে বাধা পেয়ে ফেরত গেছেন। এদের মধ্যে বেশিরভাগই ছিলেন অটিস্টিক, বুদ্ধি এবং মস্তিষ্ক পক্ষাঘাত প্রতিবন্ধী মানুষ এবং তাদের অভিভাবক।

তারা জানান, সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় থেকে পাওয়া আমন্ত্রণ পত্রে সকাল ১০টায় অতিথিদের আসন গ্রহণের বিষয়ে উল্লেখ থাকলেও সকাল ৯টার কিছু আগেই প্রধান গেটসহ অন্যান্য গেট বন্ধ করে দেওয়া হয়। কারণ জানতে চাইলে গেটে কর্তব্যরত ব্যক্তিরা জানান সব আসন পূর্ণ হয়ে গেছে, এখন আর কাউকে ভিতরে যেতে দেওয়া সম্ভব নয়।

সকাল ৯.৩০ টায় প্রধানমন্ত্রী পেছনের গেট দিয়ে ভেতরে প্রবেশ করেছেন এই তথ্য সম্মেলন কেন্দ্রের বাইরে আমন্ত্রণ পত্র হাতে দাড়িয়ে থাকা শত শত প্রতিবন্ধী ব্যক্তি ও তাদের অভিভাবকগণ জানতে পেরে বিক্ষোভে ফেটে পড়েন সবাই। মূল ফটকের সামনে গিয়ে শ্লোগান দিতে থাকেন তারা। এ সময় ব্র্যাক, ডাউন সিনড্রোম অ্যাসোসিয়েশন, প্রতিবন্ধী নাগরিক সংগঠনের পরিষদ (পিএনএসপি) এর উচ্চপদস্থ প্রতিনিধিসহ প্রতিবন্ধী মানুষের খাতে কর্মরত গণ্যমান্য অনেককেই দেখা গেছে বাইরে প্রতিবাদে অংশ নিতে। সাড়ে ৯টার পরে অনেকে হতাশ হয়ে ফেরত যান।

এখানে উল্লেখ্য, কোন এক অজানা কারণে এবার মূল ফটক দিয়ে ভিতরে প্রবেশের ব্যবস্থা না রেখে পিছনের গেট দিয়ে ঢোকার ব্যবস্থা করা হয় যে রাস্তাটি মোটেও প্রতিবন্ধী ব্যক্তিবান্ধব ছিল না। পরে উপস্থিত প্রতিবন্ধী মানুষেরা প্রধান ফটকের সামনে রোদে দাঁড়িয়ে বিভিন্ন শ্লোগান দিতে থাকলে পরে কর্তৃপক্ষ তাদেরকে ভিতরে নেওয়ার ব্যবস্থা করেন।

উপস্থিত প্রতিবন্ধী মানুষেরা অনেকেই প্রশ্ন তোলেন, আমরা যদি বাইরেই দাঁড়িয়ে থাকি তাহলে আমন্ত্রণ পত্রের ক্রমিক নম্বর অনুযায়ি আমাদের আসন পূর্ণ করলো কারা?

প্রতিবন্ধী মানুষের দিবসগুলোতে প্রতিবন্ধী মানুষের কোন প্রাধান্য থাকে না এ নিয়ে দু:খ প্রকাশ করে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন মন্তব্য করেন, নারী দিবসের অনুষ্ঠান নারীদেরই জয়জয়কার! অথচ প্রতিবন্ধী মানুষের দিবসের আয়োজনে বঙ্গবন্ধু সম্মেলন কেন্দ্রের ক্ষুদ্র একটি অংশয় জুড়েই শুধু প্রতিবন্ধী মানুষের দেখা পাওয়া যায়! এহেন প্রহসনে বোঝাই যায় প্রতিবন্ধী মানুষের খাতে আজ অ-প্রতিবন্ধী মানুষের আধিপত্যই বিরাজমান কেবল।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here