জেলায় পাটের বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা রয়েছে বলে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে।কৃষকরা ক্ষেতের পাট কেটে পানিতে জাগ দিচ্ছেন।

কৃষি বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, চলতি মৌসুমে জেলার ৩উপজেলায় ২৩হাজার ২৫ হেক্টর জমিতে পাটের আবাদ হয়েছে।যা লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে ৫শ’৮৫ হেক্টর বেশি জমি।আবাদকৃত জমিতে ২লাখ ৫৮হাজার ৬০ বেল পাট উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে।গত বছর পাটের দাম ভালো পাওয়ায় এবছর বেশি জমিতে কৃষকরা পাটের আবাদ করেছেন বলে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে।আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে এ বছর পাটের বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা রয়েছে বলে কৃষক ও কৃষি কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

নড়াইল জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর অফিস সূত্রে আরো জানা গেছে, চলতি মৌসুমে জেলার ৩উপজেলায় ২২হাজার ৪শ’৪০ হেক্টর জমিতে পাট চাষের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়।লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে পাটের আবাদ হয়েছে ২৩হাজার ২৫ হেক্টর জমিতে। প্রতি উপজেলায় লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি জমিতে পাটের আবাদ হয়েছে। নড়াইল সদর উপজেলায় পাট চাষের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ৭হাজার ২০ হেক্টর জমিতে।এ উপজেলায় আবাদ হয়েছে ৭হাজার ২৫হেক্টর জমিতে। লোহাগড়া উপজেলায় পাট চাষের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ১১হাজার ৯৫০হেক্টর জমিতে।এ উপজেলায় আবাদ হয়েছে ১২হাজার ১৫০হেক্টর জমিতে।কালিয়া উপজেলায় পাট চাষের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ৩হাজার ৪৭০ হেক্টর জমিতে।এ উপজেলায় পাটের আবাদ হয়েছে ৩হাজার ৮৫০হেক্টর জমিতে।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে,নড়াইল সদর উপজেলার, লোহাগড়া উপজেলা ও কালিয়া উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় কৃষকরা মাঠ থেকে পাট কেটে পানিতে জাগ দিচ্ছেন।

 

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here