ডেস্ক রিপোর্ট:: পাকিস্তানে যেকোনো সংগঠনেই বাইরের কোনো পক্ষের হস্তক্ষেপ যেন সাধারণ ব্যাপার। তবে ফুটবলে বাইরের কোনো পক্ষের হস্তক্ষেপ কোনোভাবেই সমর্থন করে না বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা। ফলে বোর্ডের কমিটিতে সরকারি হস্তক্ষেপ হওয়ায় পাকিস্তানকে ফুটবলের সব কার্যক্রম থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ করেছে ফিফা।

বুধবার এক বিবৃতিতে এ কথা জানিয়েছে বিশ্ব ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা। পাকিস্তানের এই নিষেধাজ্ঞা বিবৃতি প্রদানের সঙ্গে সঙ্গেই কার্যকর হচ্ছে। পাকিস্তান ছাড়া আফ্রিকার দেশ চাদের ফুটবল ফেডারেশনকেও নিষিদ্ধ করেছে ফিফা। ফুটবল ফেডারেশনে সরকারি হস্তক্ষেপের শাস্তি পেল ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ের ১৭৮ নম্বর দলটি।

সম্প্রতি এক ধরনের অস্থিরতার মধ্য দিয়ে যাচ্ছিল পাকিস্তান ফুটবল। এমনকি লাহোরের পাকিস্তান ফুটবল ফেডারেশনের কার্যালয় দখলের মতো ঘটনাও ঘটেছে। এমতাবস্থায় সরকারি হস্তক্ষেপে ফেডারেশনের ফিফা অনুমোদিত কার্যনির্বাহী কমিটি ভেঙে দেয়া হয়েছে। এসব ঘটনার জেরেই ফিফা এমন সিদ্ধান্ত নিল।

অবশ্য আগেই পাকিস্তান ফুটবল ফেডারেশনকে সতর্ক করেছিল ফিফা। বিশ্ব ফুটবল সংস্থা জানিয়েছে, এই নিষেধাজ্ঞা তখনই তুলে নেয়া হবে যখন তাদের অনুমোদিত কোনো কমিটি আবারো পাকিস্তান ফুটবল ফেডারেশনের দায়িত্ব নেবে।

বর্তমান ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে পাকিস্তানের অবস্থান ২০০। ২০১৯ সালে বিশ্বকাপের প্রাক-বাছাইপর্বে কম্বোডিয়ার বিপক্ষে দুই লেগে যথাক্রমে ২-০ ও ২-১ গোলে হেরে বিশ্বকাপের মূল বাছাইপর্বে জায়গা করে নিতে ব্যর্থ হয় তারা।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here