ইউনাইটেড নিউজ ডেস্ক:: কর ফাঁকির মামলায় স্পেনের জেলে যেতে হতে পারে সাড়াজাগানো কলম্বিয়ান পপ স্টার শাকিরাকে।মার্কিন গণমাধ্যম সিএনএন জানিয়েছে, শাকিরার বিরুদ্ধে ২০১২, ২০১৩ ও ২০১৪ সালে কর ফাঁকির পর্যাপ্ত প্রমাণ আছে স্পেনের আদালতের কাছে। স্পেনের বার্সেলোনার স্থানীয় একটি আদালত এ–সংক্রান্ত একটি রুল জারি করেছেন। ২০ জুলাই এই রুল জারি করা হয়।

বিচারক মার্কো জেসাস জুবেরিয়াস জানিয়েছেন, ওই তিন বছরে শাকিরা ২০০ দিনের বেশি সময় ধরে স্পেনে থেকেছেন। সে হিসেবে ১৪.৫ মিলিয়ন ইউরো (বাংলাদেশি মূদ্রায় ১৪৬ কোটি টাকার বেশি) কর ফাঁকি দিয়েছেন শাকিরা।

স্পেনের বিভিন্ন গণমাধ্যমে বলছে, এই মামলায় শাকিরা দোষী সাব্যস্ত হলে তাকে জরিমানা করা হতে পারে। এমনকি জেলেও যেতে হতে পারে তাকে।

কর ফাঁকির বিষয়টি নিয়ে বর্তমানে স্পেনের কর সংস্থা আর শাকিরার আইনজীবীর মধ্যে তার ‘মূল আবাস’ নিয়ে তর্ক চলছে।

শাকিরার আইনজীবীর দাবি, এ শিল্পীর বাড়ি ছিল বাহামাতে। তবে কেন স্পেনকে কর দিতে হবে?

তবে স্পেনের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের দাবি, বার্সেলোনাতে শাকিরার একটা বাড়ি আছে। সেখানে বার্সালোনা ক্লাবের ডিফেন্ডার জেরার্ড পিকের সঙ্গে থাকছেন শাকিরা। তাদের দুই সন্তানও আছে।

প্রশ্ন উঠেছে, স্পেনের কর আইন অনুযায়ী দেশটিতে কতদিন বসবাস করলে কর দিতে হয় সরকারকে?

মাদ্রিদ ট্যাক্স বিশেষজ্ঞ বিয়েত্রিজ গার্সিয়া সিএনএনকে জানিয়েছেন, স্পেনে যদি কেউ অন্তত ছয় মাস থাকেন, তাহলে ওই বছরে তিনি স্পেনকে কর দিতে বাধ্য।

এদিকে যুক্তি-তর্ক উপস্থাপনের জন্য দুই পক্ষকেই ১০ দিন সময় বেঁধে দিয়েছেন বার্সেলোনা আদালত।

তথ্যসূত্র: ফার্স্টপোস্ট, সিএনএন

 

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here