আবু সাঈদ অপু, স্টাফ রিপোর্টার, সৈয়দপুর থেকে ফিরে : 
আমার রাজনৈতিক জীবনের ৪৫ বছরে আমি কোনদিন সাংগঠনিক পরিচয়কে ব্যবহার করে অসৎ স্বার্থ হাসিলের চেষ্টা করি নাই। জেলায় কর্মরত সকল সংবাদ কর্মীর সাথে আমার  সু-সম্পর্ক রয়েছে। 
বঙ্গবন্ধু কন্যা ও বর্তমান সরকারের মাননীয়  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আর্শিবাদে টানা দু’বারের মতো আমি উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছি।  এর আগে রেলখাত উন্নয়নসহ কেন্দ্রীয় শ্রমিকলীগের শীর্ষ পর্যায়ে থেকে উৎসাহ নিয়ে শ্রমিকদের অধিকার আন্দােলনে কাজ করেছি নিরলসভাবে। মানুষ চলার পথে ভুল হতেই পারে। রাজনৈতিক পথ চলতে গিয়ে কোন অনিচ্ছাকৃত ভুলের জন্য ক্ষমাসুন্দর হিসেবে দেখার আহবান জানান তিনি। এছাড়াও সরকার বিরোধী আন্দোলনসহ রাজনীত থেকে বিতারিত করার জন্য আমাকে ভরতীয় গুপ্তচর দিয়ে হত্যার চেষ্টা করা হয়। এমনকি মায়ের মরদেহ রেঁখেও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে  নির্বাচনে নৌকার হাত শক্তিশালি করতে কাজ করেছি।
এছাড়াও জামাত-বিএনপি জোট সরকারের শাসনামলে আমি রাজপথে থেকে সৈয়দপুরকে অচল করে দিয়েছিলাম। আমি সব সময় আওয়ামী লীগের সিদ্ধান্তকে সব সময় সর্মথন করি এবং প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে উনি যা করতে বলবেন আমি তাই করতে প্রস্তুত। এছাড়াও করোনাকালীন সময়ে সরকারের নির্দেশ মোতাবেক ৩ জন ডাক্তারসহ ৫৫ জন সেচ্ছাসেবী সব সময় মাঠে ছিলাম। এছাড়াও স্থানীয় সরকারের অনুষ্ঠিত নির্বাচনে আমি নৌকা প্রতীকের পক্ষে সর্বাত্নক কাজ করেছি। জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও আমার অবস্থান ছিলো শক্ত। আমি একজন আওয়ামী পরিবারের সন্তান। তাই ভাইজান বাহিনী নামের যে রং আমার গায়ে ছড়ানো হচ্ছে তার কোন অস্থিত্ব নেই বলে সৈয়দপুর উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা শাখার আওয়ামীগ সভাপতি মোঃ মোখছেদুল মোমিন আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।
এছাড়াও উদ্দেশ্যপ্রনীতভাবে আমাকে জড়িয়ে যারা ভূমিদস্যুতার অভিযোগ এনেছে তা বানোয়াট ভিত্তিহীন বলেও মন্তব্য করেন উপজেলা চেয়ারম্যান মোখছেদুল মোমিন।  এ সময় জেলার বিভিন্ন কর্মরত সংবাদ কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
এছাড়াও ইউনিয়ন ও পৌর আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও আমি সব সময় আত্নপক্ষ সর্মথনের সুযোগ দিয়ে কাজ করে থাকি বলেই সৈয়দপুরবাসী বার বার আমাকে নেতা হিসেবে বেছে নেয়। রাজনৈতিক বক্তব্য দিতে গিয়ে কোন কটুক্তিমুলক কথা বলে থাকি সেজন্য আমি দুঃখ প্রকাশ করছি বলেও সংবাদ সম্মেলনে জানান মোকসেদুল মোমিন।
Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here