দেশে নতুন করে আরও ১৩ জন ব্যক্তির করোনার ভারতীয় ধরনে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এই ১৩ জনের মধ্যে সাতজনই চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার। আর ১৩ জনের মধ্যে কেবল পাঁচজন সম্প্রতি ভারত ভ্রমণ করে দেশে ফিরেছেন। বাকি আটজন ভারতে না গিয়েও করোনাভাইরাসের ভারতীয় ধরনে আক্রান্ত হয়েছেন।

নতুন করে শনাক্ত হওয়া এই ব্যক্তিদের নমুনা নিয়েছে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর)।

জিআইএসএআইডির তথ্য বলছে, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ওই সাতজনের পাঁচজনই পুরুষ। পুরুষ পাঁচজনের মধ্যে সবচেয়ে কনিষ্ঠজনের বয়স ১৩ বছর। একজনের বয়স ৩০ বছর, আরেক জনের বয়স ২১ বছর। বাকি দুজন হলো ৫২ বছর বয়সী এবং ২৭ বছর বয়সী। বাকি দুজন নারী। নারী দুজনের বয়স একজনের ২৭ বছর, আরেকজনের ৩১ বছর। এই সাতজনের কেউই অবশ্য সম্প্রতি ভারত ভ্রমণ করেননি

গত ৮ মে বাংলাদেশের দুই ব্যক্তির শরীরে করোনার ভারতীয় ধরনের (বি.১.৬১৭.২) অস্তিত্ব পাওয়া যায়। তাঁরা দুজনই পুরুষ এবং উভয়ই সম্প্রতি ভারত থেকে দেশে ফেরেন। এ পর্যন্ত বাংলাদেশে মোট ২০ জন ব্যক্তির শরীরে করোনাভাইরাসের ভারতীয় ধরনের উপস্থিতি পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। সে তথ্য জিআইএসএআইডির তথ্যভান্ডারে প্রকাশিত হয়েছে। এই ২০ জনের মধ্যে কেবল ১১ জন সম্প্রতি ভারত ভ্রমণ করেছেন। বাকিরা দেশে থেকেই সংক্রমিত হয়েছেন।

দেশে এ পর্যন্ত করোনা ভাইরাসের পাঁচটি ধরন শনাক্ত হয়েছে। এগুলো হলো: যুক্তরাজ্য, ব্রাজিল, ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা, নাইজেরিয়া।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here