দীপকের চতুর্থ কাব্যগ্রন্থ ‘হে বঙ্গ’

দীপকের চতুর্থ কাব্যগ্রন্থ ‘হে বঙ্গ’
স্টাফ রিপোর্টার :: একুশে গ্রন্থমেলায় নাট্যকার ও সাংবাদিক দীপংকর দীপকের চতুর্থ কাব্যগ্রন্থ ‘হে বঙ্গ’ প্রকাশিত হয়েছে। দেশাত্মবোধক ৪১টি কবিতা নিয়ে বইটি সাজানো হয়েছে। এটি প্রকাশ করেছে মিজান পাবলিশার্স। বইয়ের ভূমিকা লিখেছেন সদ্য একুশে পদকপ্রাপ্ত কবি অসীম সাহা। প্রচ্ছদ এঁকেছেন শতাব্দী জাহিদ।
এ বইয়ে স্বদেশপ্রেম, বাঙালির ইতিহাস-ঐতিহ্য, মুক্তিযুদ্ধ, বঙ্গবন্ধুর কীর্তিগাথা, নারীমুক্তি, প্রকৃতিপ্রেমসহ গবেষণামূলক নানা বিষয় ফুটে উঠেছে। একইসঙ্গে কবিতার দৃশ্যপটে ধর্মনিরপেক্ষতা, জীবনমুখী সংগ্রাম, প্রথাবিরোধী মনোভাব, শ্রেণিচেতনা ও সমাজ বাস্তবতা জীবন্ত উপাদান হয়ে পরিস্ফ‚টিত হয়েছে।
বইয়ে ‘বাংলাদেশ’ নামের কবিতাটিতে কবি শব্দাক্ষরের সহায়তায় বাংলাদেশের একটি মানচিত্র-ই এঁকে ফেলেছেন। বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে রয়েছে পাঁচটি কবিতা। এ ছাড়াও বইয়ে পাঁচটি চতুর্দশপদী, একটি অষ্টাদশপাদী ও পাঁচটি গীতিকবিতা স্থান পেয়েছে।
এ প্রসঙ্গে দীপংকর দীপক বলেন, ‘বাংলাভাষার মাধুর্যতায় আসক্ত হয়ে কাব্যচর্চা করছি। আর মনের পিপাসা নিবারণে গল্প কিংবা উপন্যাস লিখছি। গতবারের কবিতার বই কালচক্রে সময়ের সঙ্গে মানব জীবনের সম্পর্ক খোঁজা হয়েছিল। এবারের বইয়ে শুধু দেশমাতৃকার বন্দনা করা হয়েছে। আশা করি, আমার বইটি পাঠকহৃদয়কে কিছুটা হলেও আন্দোলিত করবে।’
এ পর্যন্ত দীপকের ডজনখানেক বই প্রকাশিত হয়েছে। এর মধ্যে ‘বুনো কন্যা’, ‘নাস্তিকের অপমৃত্যু’ ও ‘ঈশ্বরের সঙ্গে লড়াই’ পাঠকমহলে বেশ প্রশংসিত হয়েছে। তা ছাড়া তার সিক্যুয়াল কাব্যগ্রন্থ ‘নিষিদ্ধ যৌবন-প্রথম খণ্ড’ এবং ‘নিষিদ্ধ যৌবন-দ্বিতীয় খণ্ড’ও পাঠকপ্রিয়তা পেয়েছে।
কিছুদিন আগে ‘অন্ন কিংবা আত্মহত্যা’ শিরোনামে দীপকের একটি নাটক প্রচারিত হয়েছে। শিগগিরই তাঁর লেখা দুটি দেশাত্মবোধক গান প্রকাশিত হবে। তা ছাড়া সাহিত্যচর্চার স্বীকৃতি হিসেবে গত বছর তিনি ‘বেগম রোকেয়া সাহিত্য সম্মাননা’ অর্জন করেছেন।
Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

এমি জান্নাত 

এমি জান্নাত’র কবিতা ‘না দেওয়া কথা’

না দেওয়া কথা -এমি জান্নাত যে আমায় চিনেছে আমি চিনিনি তারে ভুল ...