সম্পর্ক

-তাহমিনা কোরাইশী

একটি বীজ নিজ তাগিদেই মাটি ফুরে অবাক দৃষ্টিতে আঁখি মেলে
ভীরু ভীরু নাজুক দু’নয়নে আকাংখার শিশির বিন্দু
লকলকিয়ে বেড়ে ওঠা পাতার শেঁউঁতিতে ইচ্ছেরা হুটোপুটি
উদার প্রকৃতি হাত বাড়িয়ে ছুঁয়ে দেয় ওর নরম শরীর
আলো হাওয়া রোদ বৃষ্টি জল মাটিতে গ্রনি’ত
হয় শেকড় দূর বহু দূর।

এ এক ভালোবাসার নিবিড় আলিঙ্গনে জড়িয়ে থাকা অনুভব
মাটির সাথে নিরন্তর খেলায় খিলখিলিয়ে হেসে ওঠে সবুজ পাতারা
মানুষের সাথে মিতালী সে তো হয় সম্পর্কের বিস্তার
এরই নাম জীবন
এই জীবনের অপর নাম ভালোবাসা।

তবুও তুমি কেনো নেকাবের আড়ালে থাকবে বলো
বন্ধ ঘরে আগড় দেয়া দোরে?
সম্পর্কের মনে যদিও হয় হোঁচট খাওয়া
যদিও হয় বিষম লাগা
তবুও কি বকুল ঘ্রাণ নিতে খুলবে না দোর?
টক-মিষ্টি লবণ তিতা সব স্বাদ বুঝি প্রয়োজন
কাকে করা যায় বর্জন।

তেতো-তেতো বলে সম্পর্কে যদিও আসে মালিন্য
কার্যত সেই তো বেশী প্রয়োজন দেহ তত্ত্বে
জলের তৃষ্ণায় ছুটে চলি দূর বহু দূর সমুদ্দুর
যদিও হাতের নাগালেই সুপেয় জল-পুকুর-নদী
দীঘি বর্ষার বারিধায় প্লাবন
সম্পর্কের আজলায় নিবিড় অনুভূতিতেও
শুকনো গাঙে ডাকে বান
ভুলে যাবো সব টানাপোড়েন
যদি তুমি খুলে দাও দোর
হবে আলোয় আলোয় হবে ভোর …

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here