রাবি প্রতিনিধি :: তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে যাওয়া রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মানিক রাইহান জামিনে কারামুক্ত হয়েছেন। আজ সোমবার বিকেল পাঁচটায় তিনি চাঁপাইনবাবগঞ্জের কারাগার থেকে মুক্তি পান।

এর আগে ২৫ নভেম্বর তিনি ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনাল থেকে জামিন পান। ট্রাইব্যুনালের বিচারক আস-সামছ জগলুল হোসেন জামিনের এই আদেশ দেন বলে জানিয়েছেন মানিক রাইহানের আইনজীবী রবেন্দ্রনাথ রায়।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ কারাগারের জেলার মো. ইসমাইল হোসেন বলেন, মানিকের জামিননামা আসার পর সোমবার বিকেল পাঁচটায় তাঁকে কারামুক্ত করা হয়েছে।

১৩ নভেম্বর শুক্রবার বিকেলে চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে মানিক রাইহানের গ্রামের বাড়ি পারদিলালপুর থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করে শিবগঞ্জ থানার পুলিশ। পরদিন শনিবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়।

মিথ্যা সংবাদ পরিবেশনের অভিযোগে পাঁচ বছর আগে ২০১৫ সালে ২৪ অক্টোবর যুগান্তরসহ ৮ থেকে ১০টি পত্রিকার বিরুদ্ধে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় মামলা করা হয়। মামলাটি করেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষক কাজী জাহিদুর রহমান। এই মামলার তদন্ত শেষে গত বছরের ২৯ সেপ্টেম্বর যুগান্তর পত্রিকার সম্পাদক ও জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি সাইফুল ইসলামসহ আটজনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র জমা দেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও মতিহার থানার উপপুলিশ পরিদর্শক (এসআই) মোমিন। পরে আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

রাইহান রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিজ্ঞান বিভাগের ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী। বর্তমানে তিনি যুগান্তরের রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত। ২০১৫ সালে তিনি ২৪ বিডিটাইম ডটকম নামের একটি অনলাইন পোর্টালের বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here