ডেস্ক রিপোর্ট:: প্রিয়জনদের সঙ্গে ঈদ উদযাপন শেষে রাজধানী ঢাকায় ফিরতে শুরু করেছে কর্মব্যস্ত মানুষ। কেউ ফিরছেন বাসে, কেউ ট্রেনে আবার কেউ লঞ্চে।

ট্রেনে যাত্রীদের নানান দুর্ভোগের মধ্যে দিয়ে বাড়ি যেতে হলেও ফিরছেন অনেকটা আরামেই। যাত্রীরা বলছেন, ফেরার পথে নির্দিষ্ট স্টেশন থেকে নির্ধারিত সময়েই ট্রেন ছেড়েছে। পথেও কোনো ভোগান্তি হয়নি।

 

আজ (১৩ জুলাই) কমলাপুর রেলস্টেশনে দেখা যায়, যাত্রীদের তেমন ভিড় নেই। সবাই স্বস্তি নিয়েই ঢাকা ফিরেছেন। এছাড়া, কমলাপুর স্টেশন থেকেও নির্ধারিত সময়েই ট্রেন ছেড়ে যাচ্ছে।

 

নীলসাগর এক্সপ্রেসে সৈয়দপুর থেকে ঢাকায় এসেছেন শাহেদ হোসেন। তিনি বলেন, ট্রেনে অতিরিক্ত যাত্রীর চাপ ছিল না। স্বাভাবিক সময়ের মতোই মনে হয়েছে আজ। ঈদের আগে যেমন যাত্রীর চাপ ছিল তেমনটা দেখিনি। তখন বগিতে পা ফেলার জায়গা ছিল না। কিন্তু আজ ফেরার পথে এক বগিতে ৫-৬ জনকে দাঁড়িয়ে আসতে দেখেছি।

 

জামালপুর থেকে আসা যমুনা এক্সপ্রেসের যাত্রী আল আমিন বলেন, ছুটি শেষে আবার ঢাকায় ফিরে এসেছি। ট্রেনে কোনো বাড়তি ভিড় নেই। নির্বিঘ্নেই ঢাকায় পৌঁছেছি। আজ বা কাল থেকে যাত্রীর চাপ অনেক বাড়বে।

 

সুন্দরবন এক্সপ্রেস ট্রেনে খুলনা থেকে এসেছেন মনিরুজ্জামান মিয়া। তিনি বলেন, আমি শোভন বগিতে আসলাম। কোনো যাত্রীকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখিনি। ট্রেন খুলনা থেকে সাড়ে ১০টায় ছাড়ে। কিন্তু কমলাপুরে সকাল ৭টায় পৌঁছানোর কথা থাকলেও সাড়ে ৮টায় ঢাকায় এসেছে।

 

কমলাপুর স্টেশন মাস্টার মো. আফছার উদ্দিন বলেন, আজ ঢাকা ছাড়ার যাত্রীর চাপ স্বাভাবিক। কিন্তু আসার যাত্রী বেশি। আগামী শুক্র ও শনিবার আসার যাত্রী সবচেয়ে বেশি হবে। এখন ট্রেন চলাচলে কোনো বিপর্যয় নেই। আজ মোট ৪১ জোড়া ট্রেন আসা-যাওয়া করবে।

 

 

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here