আলিফ আবেদী গুঞ্জন, ঝিনাইদহ থেকে ::
গত ২৫ জুলাই ২০২২ তারিখ ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জ থানাধীন গয়েশপুর গ্রামস্থ ভিকটিম এর নাবালিকা মাদ্রাসা পড়ুয়া মেয়েকে প্রতিনিয়ত মাদ্রাসায় যাওয়া এবং আসার সময় আসামীসহ সহযোগীরা দলবদ্ধভাবে উৎতক্ত/ইভটিজিং করত। বিষয়টি মেয়েটি তার পরিবারকে জানালে পরিবারের লোক বিবাদী পক্ষের অভিভাবদেরকে জানালে আসামীরা আরো ক্ষিপ্ত হয় এবং উক্ত পারিবারিক মতবিরোধকে কেন্দ্র করে আসামীসহ সহযোগীরা যোগসাজসে বেআইনীভাবে দলবদ্ধভাবে ভিকটিম এবং তার ছোট ভাই এর উপর প্রকাশ্যে দিবালকে দেশীয় তৈরী ধারালো অস্ত্রদ্বারা এলোপাথারি ভাবে আঘাত করে গুরুতর জখম করে। এই ঘটনাটি টিভি মিডিয়াতে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করে।
এ বিষয়ে ভিকটিম গত ২৬ জুলাই  ২০২২ তারিখে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করে। ঘটনার বিষয়ে র‌্যাব-৬, ঝিনাইদহের একটি চৌকষ আভিযানিক দল ছায়াতদন্ত শুরু করে এবং আসামী গ্রেফতারে গোয়েন্দা তৎপরতা অব্যাহত রাখে।
এরই ধারাবাহিকতায় অদ্য ২৭ জুলাই ২০২২ তারিখ র‌্যাব-৬, ঝিনাইদহের উক্ত আভিযানিক দলটি গোপন তথ্যের ভিত্তিতে, উক্ত হত্যাচেষ্টা মামলার অন্যতম আসামী গয়েশপুর গ্রামস্থ এলাকায় অবস্থান করছে। প্রাপ্ত সংবাদের সত্যতা যাচাই এবং আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের উদ্দেশ্যে আভিযানিক দলটি ১৫.২০ ঘটিকার সময় ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জ থানার গয়েশপুর গ্রামস্থ এলাকা থেকে উক্ত হত্যাচেষ্টা মামলার অন্যতম পলাতক আসামী হৃদয় (২০), পিতা- সদর মোল্লা, সাং- গয়েশপুর, থানা- কালীগঞ্জ, জেলা- ঝিনাইদহকে গ্রেফতার করে।
গ্রেফতারকৃত আসামীকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে উক্ত ঘটনার সাথে সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করে। পরে গ্রেফতারকৃত আসামীকে ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জ থানায় হস্তান্তর করা হয়।
Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here