শাবি: শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক মুহম্মদ জাফর ইকবাল ও তার স্ত্রী অধ্যাপক ইয়াসমীন হক পদত্যাগ করেছেন।

জনপ্রিয় লেখক অধ্যাপক জাফর ইকবালের সঙ্গে আলোচনা না করে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় এবং যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমন্বিত ভর্তি পদ্ধতি বাতিল করায় তারা পদত্যাগ করেছেন বলে জানা যায়। জাফর ইকবাল এ সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষার টেকনিক্যাল কমিটির প্রধান ছিলেন।

মুহম্মদ জাফর ইকবাল কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক এবং ইলেক্টিক্যাল এন্ড ইলেক্টোনিস বিভাগের বিভাগীয় প্রধান এবং ইয়াসমীন হক পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ছিলেন।

তাদের পদত্যাগের খবর ছড়িয়ে পরলে শত শত শিক্ষার্থীরা এর প্রতিবাদে একাডেমিক ভবন ‘এ’ এর সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন শুরু করে।

অধ্যাপক ইয়াসমিন হক বলেন, অধ্যাপক জাফর ইকবালের সঙ্গে আলোচনা না করে সমন্বিত ভর্তি পদ্ধতি বাতিল করায় আমরা রেজিস্ট্রার অফিসে পদত্যাগপত্র দিয়েছি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ইসফাকুল হোসেন বলেন, আমি কোন পদত্যাগপত্র পাইনি।

এর পূর্বে মঙ্গলবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিলের এক জরুরি সভায় সমন্বিত ভর্তি পদ্ধতি বাতিল করার সিদ্ধান্ত নেয় শাবি প্রশাসন।

উল্লেখ্য, শাবিপ্রবি ও যবিপ্রবি চলতি বছর থেকে একই প্রশ্নপত্রে সমন্বিত ভর্তি পদ্ধতি চালুর উদ্যোগ নেয়। এ পদ্ধতি বাতিলের দাবিতে গত কয়েকদিন ধরে সচেতন সিলেটবাসী, সিলেট স্বার্থ রক্ষা, জাসদ ও বাসদসহ কয়েকটি সংগঠন আন্দোলন করে আসছে। ফলে সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনে সঙ্গে আন্দোলনকরীদের বৈঠক হয়। বৈঠকে জাফর ইকবালকে কটাক্ষ করে বক্তব্যদেন একাধিক নেতা।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here