ব্রেকিং নিউজ

ছিটমহল বিনিময় চুক্তি নিয়ে মমতার সমালোচনায় ফরওয়ার্ড ব্লক

কলকাতা প্রতিনিধি:

 

ছিটমহল চুক্তি নিয়ে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের অবস্থানের সমালোচনা করল ফরওয়ার্ড ব্লক।

সোমবার দলের সর্বভারতীয় সাধারন সম্পাদক দেবব্রত বিশ্বাস সাংবাদিক সম্মেলন করে ছিটমহল বিনিময় নিয়ে পশ্চিমবঙ্গ সরকার ও রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের অবস্থানের কঠোর সমালোচনা করেন।

তিনি বলেন স্থলসীমান্ত চুক্তিতে পশ্চিমবঙ্গ সরকার অনুমোদন না দেওয়ার ফলে ভারত এবং বাংলাদেশ উভয় দেশেই সামাজিক ও রাজনৈতিক জটিলতা সৃষ্টি করবে।

২০১১ সালে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং এবং বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মধ্যে স্বাক্ষরিত স্থলসীমান্ত প্রোটোকল চুক্তির বিষয়ে এদিন মি.বিশ্বাস বলেন ছিটমহল বিনিময় নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী যে অবস্থান নিয়েছেন তাতে বাংলাদেশের মৌলবাদী শক্তিগুলি উৎসাহ পাবে। ‘আমরা এর কঠোর বিরোধীতা করছি’।

এর আগে কলকাতায় শেষ হওয়া তিন দিনের কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠকেও ছিটমহল বিনিময় নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী যে অবস্থান নিয়েছেন তাতে বাংলাদেশের মৌলবাদী শক্তিগুলি উৎসাহ পাচ্ছে বলে দলের কেন্দ্রীয় কমিটির তাদের মত প্রকাশ করে।

স্থলসীমান্ত বিল নিয়ে মমতার বিরোধীতার ফলে মৌলবাদী শক্তিগুলি বাংলাদেশে সরকার বিরোধী প্রচার চালাচ্ছে বলেও ফরওয়ার্ড ব্লকের নেতাদের মত। বৈঠকে আসন্ন লোকসভা ভোটে দলের কর্মসূচী, রাজ্যজুড়ে দলীয় কর্মীদের ওপর হামলা সহ একাধিক বিষয় নিয়ে আলোচনা হলেও প্রাধান্য পায় ভারত-বাংলাদেশ দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কিত বিষয়গুলি নিয়ে।

উল্লেখ্য তৃণমূল কংগ্রেস এবং অসম গণ পরিষদের সাংসদদের সঙ্গে প্রবল হাতাহাতির মধ্যেই গত ১৮ ডিসেম্বর ভারতের বিদেশমন্ত্রী সলমান খুরশিদ ছিটমহল বিনিময়ের জন্য স্থলসীমান্ত চুক্তিটির অনুমোদন সংক্রান্ত সংবিধান সংশোধনী বিলটি পেশ করেন।

রাজ্যসভা অধিবেশনের শেষদিনে বাংলাদেশ সংক্রান্ত স্থলসীমান্ত চুক্তি বেল পেশের পর ওইদিন রাতেই ফেসবুকে নিজের অসন্তোষ প্রকাশ করেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়।

ফেসবুকে ওয়াল পোস্ট করে কেন্দ্রীয় সরকারকে তোপ দেগে মমতা বলেন এটা খুবই দুর্ভাগ্যজন, লোকসভা ভোটের মুখে রাজনৈতিক স্বার্থ চরিতার্থ করতে একটি দলের রাজনৈতিক গিমিক। রাজ্যের অনুমতি না নিয়ে এভাবে একতরফা বিল পেশ দমনমূলক প্রবণতা। আমরা এই বিল মানছি না। রাজ্যসরকার এটা কোনওবাবেই বাস্তবায়িত করবে না। আমাদের রাজ্যের এক ইঞ্চি জমিও ছাড়া হবে না। পশ্চিমবঙ্গ, অসম, ত্রিপুরা এবং উত্তরপূর্বাঞ্চল এবং দেশের অন্য অংশের জন্য আমরা একযোগে লড়াই করব’।

 

Print Friendly, PDF & Email
0Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

পুলিশ প্রধানকে সামরিক বাহিনীর অপহরণ, সংকটে পাকিস্তান সরকার

ডেস্ক রিপোর্ট :: পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে ক্ষমতাচ্যুত করার লক্ষ্যে দেশটির বিরোধী ...