ঘুটিয়ারি শরীফে ৬শ প্রান্তিক পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ 

কলকাতা প্রতিনিধি :: পশ্চিমবঙ্গের জিবনতলা থানার ঘুটিয়ারি শরীফ এলাকায় রয়েছে ঐতিহ্যশালী সৈয়দ গাজী মোবারক শাহ-এর মাজার শরীফ। এই মাজার শরীফ দর্শনে প্রতিদিনই হাজার হাজার দর্শনার্থী এখানে আসেন। এই মাজার শরীফকেই ঘিরে যেমন বেশকিছু মানুষের জীবন-জীবিকা চলে তেমনি অসহায় গরীব প্রান্তিক মানুষদের অন্নের সংস্থানও হয় এই মাজারে আসা দর্শনার্থীদেরকে কেন্দ্র করেই। কলকাতা থেকে ঘুটিয়ারি শরীফ এর দূরত্ব কম হওয়ায়় এবং এখানে থাকার খরচ কম হওয়ায় প্রান্তিক মানুষজন বেছে নেন এই জায়গাটিকেই।
.
এরই মধ্যে হঠাৎ লকডাউনে জনজীবন স্তব্ধ। করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ের মধ্যে দক্ষিণ ২৪ পরগনার জিবনতলার ঘুটিয়ারি শরিফে ২০,০০০ সদস্য আটকে পড়েছেন যার মধ্যে মহিলা ও শিশুরাও রয়েছে। চরম খাদ্য সংকটে ভুগছেন এইসব মানুষজন। অনেককেই আছেন পরিযায়ী শ্রমিক এদের মধ্যে।
.
এখন চলছে রমজান মাস। এলাকার কয়েক হাজার মানুষ রোজা রাখার পর ইফতার সারছিলেন শুধুমাত্র জল দিয়েই। এমনই এক করুন পরিস্থিতিতে এগিয়ে এলেন মুম্বাই আই আই টির গবেষক আশিফ আকরাম, উদার আকাশ পত্রিকা ও প্রকাশনের  সম্পাদক ফারুক আহমেদ, কবি লিটন রাকিব, সাংবাদিক হাসিবুর রহমানরা তাদের সহযোগিতায় ৬০০ পরিবারের হাতে খাদ্য সামগ্রী তুলে দেওয়া সম্ভব হয়েছে। অনেক স্বেচ্ছাসেবক এগিয়ে আসছেন সহযোগিতা নিয়ে।
.
এদিন আশিফ আকরাম বলেন-“লিটন রাকিব ও ফারুক আহমেদের সঙ্গে কথা বলার পর বুঝলাম যে ওই এলাকার জন্য অবিলম্বে  সাহায্যের দরকার। আমার পরিচিত বাঙালি ও অবাঙালি গ্রুপে সাহায্যের আবেদন রাখলাম। আশ্চর্যজনকভাবে অবাঙালিরা বেশি এগিয়ে এলেন। পরিশেষে ওই অঞ্চলের জন্য আমরা যথাসম্ভব সাহায্য পাঠালাম।”
.
ফারুক আহমেদ ও লিটন রাকিবরা সকল মানবিক মানুষদের কাছে আবেদন রাখছেন-“অসহায় মানুষদেরকে সাহায্য করতে এগিয়ে আসুন। যার যেমন সামর্থ্য আছে সাহায্য নিয়ে এগিয়ে এলে অসহায় মানুষগুলো বাঁচতে সাহস পাবে এবং কেউ না খেতে পেয়ে মরবে না।”
.
Print Friendly, PDF & Email
0Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

‘যুক্তরাষ্ট্রে বিদেশি শিক্ষার্থীরা কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে থাকতে পারবেন না’

বাংলা প্রেস, নিউ ইয়র্ক থেকে :: যুক্তরাষ্ট্রের কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়গুলো অনলাইনে চলে গেলে বিদেশি ...