গৃহবধূকে গলাকেটে হত্যা

জহিরুল ইসলাম শিবলু, লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি :: লক্ষ্মীপুরে নাছরিন আক্তার (৩৫) নামে এক গৃহবধূকে গলা কেটে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে তার দেবরের বিরুদ্ধে।

বুধবার ভোর রাতে সদর উপজেলার চন্দ্রগঞ্জের পশ্চিম লতিফপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত নাছরিন আক্তার ওই গ্রামের ফারুক হোসেনের স্ত্রী ও দুই সন্তানের জননী।

নিহতের স্বজন ও পুলিশ জানায়, ভোররাতে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বাইরে বের হলে আগ থেকে ওঁত পেতে থাকা দুর্বৃত্তরা তার গলা কেটে আহত করে পালিয়ে যায়। পরে তার চিৎকারে স্বামী ও ছেলে এসে তাকে উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক নাছরিনকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের স্বামী ফারুক অভিযোগ করে বলেন, নাছরিনের দেবর সুমনের সঙ্গে টাকা লেনদেনের বিষয় নিয়ে বাক বিতন্ডা লেগেই থাকতো। এজন্য নাছরিনকে গলাকেটে হত্যা করে সুমন। ছুরিকাঘাতের পর মৃত্যুর আগে সুমনের নাম বলে যায় বলেও জানান তিনি।

লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আনোয়ার হোসেন বলেন, নিহতের গলার নিচে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। প্রচুর রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হয়। তবে কী দিয়ে আঘাত করা হয়েছে তা বলা যাচ্ছে না। ময়নাতদন্তের পর বিস্তারিত জানা যাবে।

চন্দ্রগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জসিম উদ্দিন জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। পূর্ব শত্রুতার জেরে কিংবা অন্য কোনো কারণে তাঁকে হত্যা করা হয়েছে কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

কিশোরগঞ্জে বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে সেমিনার

আব্দুর রউফ, কিশোরগঞ্জ(নীলফামারী)প্রতিনিধি :: নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলায় বৃহস্পতিবার বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে কাজী, ...