কয়রা প্রতিনিধি ::
খনিজ জ্বালানির ব্যবহার বন্ধ এবং নবায়ন যোগ্য জ্বালানির ব্যবহার নিশ্চিত করুন। এই প্রতিপাদ্যে পরিবেশবাদী সংগঠন সবুজ আন্দোলন কয়রা উপজেলা শাখার উদ্যোগে কয়রার পরিবেশ বিপর্যয়ের রোধে করণীয় শীর্ষক আলোচনা সভা ও কেক কেটে ৪র্থ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন সহ বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।
১ সেপ্টেম্বর (বৃহস্পতিবার) সকাল ১১ টায় কয়রা থানা কমপ্লেক্সে কয়রা উপজেলা সবুজ আন্দোলনের সমন্বয়করী ও কয়রা রিপোটার্স ইউনিটির সভাপতি  ওবায়দুল কবির সম্রাটের  সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন কয়রা থানা অফিসার ইনচার্জ এবিএমএস দোহা(বিপিএম)। এসময় তিনি  বলেন, প্রকৃতির বিরুপ আচরণে বাংলাদেশ আজ দুর্যোগ- কবলিত।  শীতকালে  অতিরিক্ত শীত এবং গ্রীষ্মকালে  অতিরিক্ত তাপমাত্রা ও খরা ইত্যাদির কারণে দেশের জনজীবন আজ বিপর্যস্ত। পরিবেশ বিপর্যয় রোধে কয়রা সবুজ আন্দোলনের কাজ প্রশংসার দাবীদার। সবুজ আন্দোলনের মতো সকলকে পরিবেশ বিপর্যয় রোধে নিজ উদ্যোগে এগিয়ে আসতে হবে। বেশি বেশি গাছ লাগাতে হবে।পরিবেশকে বাঁচাতে হবে।
সভাপতির বক্তব্যে ওবায়দুল কবির সম্রাট বলেন, সবুজ আন্দোলন দীর্ঘদিন ধরে জলবায়ু পরিবর্তন ও পরিবেশ বিপর্যয় নিয়ে কাজ করছে সারা দেশব্যাপী। ইতোমধ্যে সারা বাংলাদেশে ধারাবাহিকভাবে সংগঠনের পক্ষ থেকে বৃক্ষরোপণ করা হচ্ছে। তিনি বলেন, নানা কারণে দিন দিন পরিবেশ দূষিত হচ্ছে। তাই উপকূলীয় ভাঙ্গন কবলিত এই অঞ্চলের পরিবেশ বিপর্যয় রোধে কয়রাকে সবুজায়নের লক্ষে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার ঘোষণা দেন সবুজ আন্দোলনের ওই উপজেলা সমন্বয়কারী। আলোচনা সভা শেষে কয়রা থানা চত্বর ও উপজেলা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিভিন্ন প্রজাতির বৃক্ষরোপন করা হয়।
এসময় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ওসি তদন্ত ইব্রাহিম আলি, কয়রা সুন্দরবন মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক খয়রুল আলম, বাজার কমিটির সভাপতি সরদার জুলফিকার আলী, কয়রা রিপোটার্স ইউনিটির সাধারণ সম্পাদক জহুরুল ইসলাম। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সবুজ আন্দোলনের রবিক হাসান, ফারুক আজম, শেখ শামসুজ্জামান, নজরুল ইসলাম গাজি, এ্যাড. আবু বক্কর সিদ্দিক, আল আমিন ইসলাম, রেজা আহম্মেদ,তুহিন, শুভ মন্ডল, ফয়সাল হোসেন, রাসেল  রানা প্রমুখ।
Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here