সজ্ঞিব দাস, গলাচিপা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ::
পটুয়াখালীর গলাচিপার উলানিয়া ব্রিজের এপ্রোস সড়ক ভেঙে যাওয়া মরণ ফাঁদে পরিনত হয়েছে। বর্ষায় ব্রিজের পশ্চিম পাশের এপ্রোস সড়ক ভেঙে যাওয়ায় ব্রিজ পারাপারে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে যানবাহন চালক, এলাকার শিশু শিক্ষর্থীসহ স্থানীয় লোকজনদের গলাচিপা-দশমিনা যোগাযোগে উলানিয়া নদীর উপর ব্রিজটি একটি জনগুরুত্বপূর্ণ ব্রিজ । এই ব্রিজের উপর দিয়ে প্রতিদিন উপজেলার অসংখ্য ছোট, বড় ও মাঝারি যানবাহন চলাচল করে।
এ ছাড়াও প্রতিদিন উলানিয়া ব্রিজর উপর দিয়ে যাতায়াত করে তিন উপজেলার হাজার হাজার মানুষ। উলানিয়া বন্দর এবং উলানিয়া কলেজ, মাদ্রাসা, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও একটি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ব্রিজের পশ্চিম পারে হওয়ায় কোমলমতি শিশু শিক্ষার্থীরা প্রতিদিনই পোহাচ্ছে চরম দুর্ভোগ ও ব্রিজে উঠতে গিয়েও দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন অনেকেই। অভিবাবকরা তাদের ছেলে-মেয়েকে স্কুলে পাঠিয়ে দুশ্চিন্তার মধ্যে দিন কাটায়।
ভুক্তভোগী হাবিবুর রহমান, অটোচালক হাফিজুর রহমান, দ্বীন ইসলাম, সোহাগ ও রুবেল খানসহ আরো অনেকে বলেন, ব্রিজটির এপ্রোস সড়ক ভেঙে যাওয়ায় আমাদের যাতায়াতে অনেক দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। তাই বিষয়টির প্রতি প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি দেওয়া প্রয়োজন। বিষয়টি তদারকির দায়িত্ব যাদের হাতে তারা দেখেও এড়িয়ে যাচ্ছেন। যার ফলে ঐ স্থানে ভারী যানবাহন আটকেগিয়ে মারাত্মক দুর্ঘটনার আশংকা দেখা দিয়েছে।
উপজেলা প্রকৌশলী মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ব্রিজটির উপর থেকে নিচে পানি গড়িযে নামার কারনে এক পাশের মাটি ধসে গিয়েছে। যার ফলে মানুষের চলাচলে সমস্যা হচ্ছে। ব্রিজের এপ্রোস দ্রুত ঠিক করে দেওয়া হবে।
রতনদী তালতলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. গোলাম মোস্তফা বলেন, ব্রিজটি এখন ঝুকিপূর্ণ খুব দ্রুত এপ্রোস মেরামত করা দরকার।
Attachments area
Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here