ডেস্ক রিপোর্ট:: দীর্ঘ বিরতির পর ২০২০ সালে ‘আরিয়া’ সিরিজ দিয়ে ওটিটি প্লাটফর্মে পা রেখেছিলেন বলিউড অভিনেত্রী সুস্মিতা সেন। ডিজনি প্লাস হটস্টারে মুক্তি পেয়েছিল এই সিরিজের প্রথম সিজন। প্রথম সিজনের সাফল্যের পর এবার দ্বিতীয় সিজন নিয়ে হাজির হচ্ছেন সিরিজটির নির্মাতা রাম মাধুবনি।

‘পরিবারই আমার শক্তি, পরিবারই আমার দুর্বলতা’ কোথায় যেন বাস্তবের সঙ্গে মিশে যাচ্ছে সুস্মিতা সেনের আগামী সিরিজের এই অংশ। ব্যক্তি সুস্মিতা বারবারই বলে থাকেন তার পরিবারই তার শক্তি, অন্যদিকে আরিয়াতে যে চরিত্রে অভিনয় করছেন সুস্মিতা সেই চরিত্রও তার সন্তানদের জন্য যেকোনো কিছু করতে পারেন। বৃহস্পতিবার মুক্তি পেয়েছে আরিয়ার নতুন সিজন আরিয়া টুয়ের ট্রেলার।

ট্রেলার থেকেই সাড়া ফেলেছেন সুস্মিতা। প্রথম সিজনের তুলনায় এই সিজনে সুস্মিতার চরিত্র আরও বলিষ্ঠ ও অ্যাকশনে ভরপুর। প্রথম সিজন শেষ হয়েছিল যেখানে সেখানে আরিয়ার স্বামীকে খুনের দায়ে গ্রেফতার হয় আরিয়ার বাবা। আরিয়া সিদ্ধান্ত নেন যে তিনি বাচ্চাদের নিয়ে দেশ ছেড়ে চলে যাবেন।

কিন্তু নতুন সিজনের ট্রেলারে দেখা যাচ্ছে ফিরে এসেছেন আরিয়া। আগের থেকে অনেক বেশি সাহসী মা তিনি। নিজের বাচ্চাদের বাঁচাতে তৎপর। পাশাপাশি আরিয়া হয়ে উঠেছে অন্ধকার জগতের ডন। কিন্তু নিজেকে ডন বলতে আপত্তি আরিয়ার।

ট্রেলারের একটি অংশে দেখা যায় সেখানে তিনি নিজের পরিচয় হিসাবে বলছেন, তিনি শুধুমাত্র একজন ওয়ার্কিং মাদার। কিন্তু এখানে তিনি একেবারেই বদলে দিয়েছেন ওয়ার্কিং মাদারের সংজ্ঞা। এ সিজনে তার বিরুদ্ধে দাঁড়িয়েছে তার বাবা, ভাই। রাশিয়ানরাও নিজেদের টাকা উদ্ধার করতে আরিয়ার পেছনে পড়ে রয়েছেন। অন্যদিকে আগের সিজনের মতো আরিয়াকে নজরবন্দি করে রেখেছেন এসিপি খান। সেই চরিত্রে রয়েছেন বিকাশ কুমার।

ট্রেলারে সাদা শাড়ি পরে দেখা গেছে প্রাক্তন মিস ইউনিভার্সকে। গোটা মুখ ঢাকা আছে লাল রঙে। ভিডিওটিতে একটি শব্দও খরচ করেননি অভিনেত্রী। তবে ক্যামেরার দিকে দৃঢ় দৃষ্টি দিতে দেখা যায় তাকে। তার চোখের চাহূনিতেই যেন সমস্ত কথা বলছেন তিনি।

ইতোমধ্যে ‘আরিয়া ২’ এর ফার্স্ট লুকে সুস্মিতার লুক দেখে প্রশংসায় ভরিয়ে দিয়েছেন নেটিজেনদের একাংশ। আন্তর্জাতিক এমিতে সেরা ড্রামা ক্যাটেগরিতে মনোনীত হয়েছিল আরিয়ার প্রথম সিজন। অনুরাগীরাও অধীর অপেক্ষায় রয়েছে সিরিজটির পরবর্তী সিজনের।

২০১০ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘নো প্রবলেম’ ছিল সুস্মিতা সেন অভিনীত সর্বশেষ হিন্দি সিনেমা। এরপর অবশ্য ২০১৫ সালে বাংলা সিনেমা ‘নির্বাক’ বড় পর্দায় তাকে দেখা গিয়েছিল।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here