ডেস্ক রিপোর্ট:: অনলাইন পেমেন্ট গেটওয়ে সার্ভিস প্রোভাইডারের (ওপিজিএসপি) মাধ্যমে একবারে ১০ হাজার মার্কিন ডলার বা তার সমতুল্য অর্থ দেশে আনা যাবে।

ওপিজিএসপির মাধ্যমে সেবা আয় প্রত্যাবাসনের বিষয়টি সহজ করতে বৃহস্পতিবার (১৭ জুন) বাংলাদেশ ব্যাংকের জারি করা খসড়া নীতিমালায় এ কথা বলা হয়েছে। ওয়েবসাইটে প্রকাশিত এ নীতিমালার বিষয়ে সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের কাছ থেকে মতামত চেয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

প্রচলিত নীতিমালা অনুসারে সেবা সরবরাহকারীরা কেবলমাত্র বাংলাদেশের অনুমোদিত ডিলার (এডি) ব্যাংকগুলোর সঙ্গে সম্পর্ক রয়েছে এমন ওপিজিএসপিগুলোর সঙ্গে নোশনাল হিসাব পরিচালনা করতে পারে। খসড়া নীতিমালায় এ আবশ্যকতা শিথিল করা হয়েছে।

নীতিমালায় বলা হয়েছে, সেবাদানকারী গ্রাহকদের যে কোনো ওপিজিএসপির সঙ্গে পরিচালিত নোশনাল হিসাবে জমাকৃত অর্থ উক্ত ওপিজিএসপির মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট এডি ব্যাংকের নস্ট্রো হিসাবে জমাকৃত অর্থ উক্ত ব্যাংক পরবর্তীতে সেবা প্রদানকারী গ্রাহকের হিসাবে জমা করবে।

এক্ষেত্রে এডি ব্যাংক সেবা প্রদানকারীর কাছ থেকে বিদেশের লাইসেন্সপ্রাপ্ত ওপিজিএসপি’র সাথে তার নোশনাল হিসাব পরিচালন সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য গ্রহণ করবে, সেবা কার্যক্রম সম্পর্কিত তথ্যাদিসহ ঘোষণা গ্রহণ করবে, সেবা প্রদানকারীর নোশনাল হিসাবে জমাকৃত সেবা আয় তাৎক্ষণিকভাবে ওপিজিএসপি’র সহায়তায় ব্যাংকের নস্ট্রো হিসাবে জমা করার বিষয়ে গ্রাহকের আন্ডারটেকিং গ্রহণ করবে। এছাড়া গ্রাহকদের যথাযথ করণীয় এবং অন্যান্য বিধিবিধান পরিপালনের বিষয়টিও পর্যবেক্ষণ করবে।

প্রণীত খসড়া সার্কুলারে এডি ব্যাংকগুলোকে তাদের নস্ট্রো হিসাবে সেবা খাতের প্রাপ্ত আয়ের প্রযোজ্য অংশ ব্যাংক তার গ্রাহকের সম্মতি সাপেক্ষে ইআরকিউ হিসাবে জমা করতে পারবে।

পাশাপাশি প্রত্যাবাসিত সেবা আয় ১০ হাজার মার্কিন ডলার বা তার সমতূল্য পরিমাণের অধিক হলে ব্যাংক ফরম-সি তে গ্রাহকের ঘোষণা গ্রহণ করবে। নীতিমালায় প্রযোজ্য করা কর্তন এবং পরিশোধের বিধিবিধান মেনে চলার বিষয়েও বলা হয়েছে।

সেবা খাতের আয় প্রেরণের সুবিধার্থে বিদেশি ওপিজিএসগুলো বিদেশ থেকে অর্থ প্রেরণ করে বাংলাদেশের এডি ব্যাংকগুলোর সঙ্গে ব্যাংক হিসাব পরিচালনা করতে পারবে। এডি ব্যাংকের সঙ্গে পরিচালিত এ হিসাবে জমাকৃত অর্থ দ্বারা সেবা প্রদানকারীদের আয় পরিশোধ করা যাবে বলে খসড়া নীতিমালায় উল্লেখ করা হয়েছে।

খসড়া নীতিমালা প্রসঙ্গে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা জানান, ক্ষুদ্র পরিসরে সেবা খাতের আয় প্রত্যাবাসনের জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক ২০১১ সালে এডি ব্যাংকগুলোকে বিদেশি ওপিজিএসপির সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপনের অনুমতি দেয়। এ বিষয়ক নীতিমালা আরও সহজ করার জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক খসড়া নীতিমালার ওপর অংশীজনদের মতামত চেয়েছে। সবার মতামতের ভিত্তিতে একটি যুগোপযোগী নীতিমালা প্রণয়ন করবে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here