৪০ গ্রাম প্লাবিত

ভোলা: চরফ্যাশন, মনপুরা ও দৌলতখান সহ জেলার অন্তত ৪০টি গ্রাম তলিয়ে গেছে । ভোলায় মেঘনার পানি বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

বসতভিটা, ফসলি জমি, রাস্তাঘাট, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন স্থাপনা তলিয়ে গেছে। পানিবন্দি হয়ে পড়েছে লাখো মানুষ। ভেসে গেছে পুকুর ও ঘেরের মাছ। এ নিয়ে তৃতীয় বারের মত বুধবার সন্ধ্যায় এসব এলাকা প্লাবিত হলো।

পানিবন্দি এলাকার মানুষ চরম দুন্দশার মধ্যে কাটালেও কেউ তাদের খবর নেয়না বলে অভিযোগ পানিবন্দি মানুষের।

পানি উন্নয়ন বোর্ড জানায়, মঙ্গলবার মেঘনার পানি বিপদ সীমার ৩ দশমিক ৭ মিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হলেও বুধবার প্রাবাহিত হয়েছে বিপদ সীমার ৩ দশমিক ৬ মিটার উচ্চতায়। মেঘনা হঠাৎ করেই উত্তাল হয়ে উঠেছে।

পানিবন্ধি এলাকার মানুষ জানায়, নির্ধারিত সময়ে বাঁধ মেরামত না করা করায় অরক্ষিত এলাকা দিয়ে পানি ঢুকে বিস্তীর্ন জনপদ পস্নাবিত হয়েছে। ঈদের দিন থেকে গ্রাম গুলি গ্রাম প্লাবিত হওয়ায় ওই সকল এলাকার মানুষ ঈদ করত পারেননি। পানিবন্দি এলাকার মানুষের ঈদ আনন্দ ভেসে গেছে প্লাবনের জলে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, চরফ্যাশনের মাদ্রাস ইউনিয়নের মোহাম্মদপুর, চর নিউটন, পূর্ব মাদ্রাজ, চর শহজালাল ও হামিদ পুর গ্রাম পস্নাবিত হয়েছে। এছাড়াও আসলামপুর, জাহারপুর, চর-কুকরী মুকরী, ঢালচর ও হাজারী গঞ্জের অন্তত ২০টি গ্রাম পস্নাবিত হয়েছে।

মনপুরা উপজেলার দক্ষিণ সাকুচিয়া, উত্তর সাকুচিয়া, মনপুরা ও হাজিরহাট ইউনিয়নের ১০টি গ্রাম, দৌলতখানের সৈয়দপুর, ভবানীপুর ও হাজিপুর ইউনিয়নের ১০টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। হাজিপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান বলেন, পুরো এলাকায় কোন বেড়িবাঁধ নেই। এতে জোয়ারের পানিতে বুধবার সন্ধ্যায় পুরো ইউনিয়ন প্লাবিত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে ১২/১৩শ মানুষ।

কুকরী-মুকরী ইউপি সদস্য আব্দুল সালাম বলেন, জোয়ারের পানিতে কুকরী-মুকরীর বাবুগঞ্জ, শাহবাজপুর ও রসুলপুর গ্রাম ডুবে গেছে। এতে শতাধিক পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন। কিছু কিছু স্থানে আবার স্থায়ী জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে।

ঢালচর ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম পাটোয়ারী জানান, নদী উত্তাল হয়ে উঠেছে।এতে মঙ্গল ও বুধবার ইউনিয়নের বেশিরভাগ এলাকা পস্নাবিত হয়েছে। পানিবন্দি হয়ে কষ্টে আছেন মানুষ।

ভোলা পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুল হেকিম বলেন, মেঘনার পানি বিপদ সীমার উপরে প্রবাহিত হওয়ার কারণে জোয়ারের পানিতে প্লাবিত হয়েছে বেশ কিছু স্থান। তবে মঙ্গলবারের চেয়ে পানির চাপ কিছুটা কম। বাঁধ মেরামতের কাজ চলছে।

শিপুফরাজী/

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

শিবগঞ্জের জঙ্গি আস্তানা

শিবগঞ্জের জঙ্গি আস্তানা থেকে চারজনের মরদেহ উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার :: চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবপুর উপজেলার শিবনগর গ্রামে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে একটি ...