Home / অর্থনীতি / ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে রেল দেখবে কক্সবাজারের মানুষ: মুজিবুল হক

২০১৮ সালের ডিসেম্বরে রেল দেখবে কক্সবাজারের মানুষ: মুজিবুল হক

২০১৮ সালের ডিসেম্বরে রেল দেখবে কক্সবাজারের মানুষ: মুজিবুল হকখালেদ হোসেন টাপু, রামু প্রতিনিধি :: কক্সবাজার জেলার রামুতে রেল লাইনের জংশন পরিদর্শন পূর্বক পথসভায় রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক এমপি বলেছেন বর্তমান শেখ হাসিনা সরকার উন্নয়ন বান্ধব। তাই কক্সবাজার ও রামুর পর্যটন ব্যবসা এবং এলাকার উন্নয়নের অগ্রধিকার ভিত্তিতে সরকার রেল লাইন নির্মাণ করছে। শিগগিরই বৃহৎ এই প্রকল্পের টিকাদারের প্রতিষ্ঠানের সাথে চুক্তি হবে। এরপর রেল লাইনের পুরোপুরি কাজ শুরু হয়ে যাবে। কক্সবাজারে নির্মাণ হবে বিশ্বমানের ঝিনুক আকৃতির প্রধান রেলস্টেশন। রামুতে হবে লাইনের বড় জংশন।

শনিবার সকালে রামু রেল লাইনের জনংশন পরিদর্শন শেষে বাইপাসস্থ এশিয়ার বৃহত্তম ফুটবল চত্ত্বরে আয়োজিত পথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, বিএনপির আমলে এই রেলপথ ছিল সবচেয়ে বেশি অবহেলিত। কোনো নতুন রেললাইন নির্মাণ, নতুন ট্রেন সংযোজন করা হয়নি। কিন’ জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় আসার পর রেলপথের উন্নয়ন হয়েছে। আমাদের লক্ষ্য শুধু একটা রেলের মাধ্যমে জনগণকে সেবা দৌগোড়ায় পৌঁছে দেওয়া।

এ প্রকল্পের কাজ শেষ হলে রামু ও কক্সবাজারের সাথে যোগাযোগ ব্যবস্থা সহজ হবে। এতে করে যোগাযোগের ধারণা পাল্টে দেবে রেলওয়ে। যাত্রী ও পণ্য পরিবহনে সুবিধা বাড়বে। পাল্টে যাবে কৃষি, পর্যটনসহ পুরো অর্থনীতির চিত্র।

মন্ত্রী আরো বলেন,রেলওয়ে একটি গণমুখী নিরাপদ ও সাশ্রয়ী এবং আরাম দায়ক গণপরিবহন প্রতিষ্ঠান হিসেবে যাত্রীদের কাঙ্খিত প্রত্যাশা পূরণ হবে। যাতের জায়গা ও জমি এ প্রকল্পে অধিগ্রহণ করা হয়েছে তাদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ পরিশোধ করা হবে। আগামী ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে রেল দেখবে রামু কক্সবাজারের মানুষ। চট্টগ্রামের দোহাজারী থেকে রামু কক্সবাজার ও ঘুমধুম পর্যন্ত রেল লাইন নির্মাণের কাজ দ্রুত শুরু করা হবে।

তিনি আরো বলেন, সরকারের লক্ষ্য যাত্রী সেবা দেওয়া এই সরকারের অবশিষ্ট মেয়াদের মধ্যে রেলের দৃশ্যমান উন্নয়ন দেখা যাবে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে পর্যায়ক্রমে সারাদেশকে রেল নেটওয়ার্কের আওতায় আনা হবে। এজন্য আমরা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি।

এতে প্রধান আলোচক ছিলেন রামু কক্সবাজারের সাংসদ আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল। রামু উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রিয়াজ উল আলমের সভাপতিত্বে ও জেলা মৎস্য জীবিলীগের সহ সভাপতি আনছারুল হক ভুট্টোর সঞ্চালনায় পথসভায় বক্তব্য রাখেন ভাইস চেয়ারম্যান আলী হোসেন কোম্পানি, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ শাহজাহান আলী, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি জাফর আলম চৌধুরী, মহিলা সম্পাদক মুসরাত জাহান মুন্নি, গর্জনিয়া চেয়ারম্যান সৈয়দ নজরুল ইসলাম, কাউয়ারখোপ চেয়ারম্যান মোস্তাক আহাম্মদ, ফতেখাঁরকুল চেয়ারম্যান ফরিদুল আলম, চাকমারকুল চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সিকদার, রাজারকুল চেয়ারম্যান মুফিজুর রহমান, রশিদ নগর চেয়ারম্যান এম.ডি শাহ আলম, আওয়ামীলীগ নেতা মুক্তিযোদ্ধা মাস্টার ফরিদ আহাম্মদ, রামু স্বেচ্ছাসেবলীগের সহ-সভাপতি এড: মোজাফ্‌ফর আহাম্মদ হেলালী, জেলা যুবলীগ নেতা পলক বড়-য়া আপ্পু, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নীতিশ বড়ুয়া।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

ভোলায় এক্সিম ব্যাংকের শাখা উদ্ধোধন

ভোলায় এক্সিম ব্যাংকের শাখা উদ্ধোধন

এম শরীফ আহমেদ, ভোলা থেকেঃ  বাংলাদেশের সর্বদক্ষিণে দ্বীপ জেলা ভোলায় এক্সপোর্ট ইমপোর্ট ...