সুচিত্রা সেনের শারীরিক অবস্থার অবনতি

কলকাতা: মহানায়িকা সুচিত্রা সেনের শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হল। শুক্রবার দুপুরে হাসপাতালের তরফে মেডিক্যাল বুলেটিনে জানানো হয় এদিন সকাল থেকে হঠাৎই তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে থাকে। রক্তে অক্সিজেনের মাত্র কমেছে মহানায়িকার। এরপরই তড়িঘড়ি আলোচনায় বসেন মহানায়িকার চিকিৎসায় দায়িত্বপ্রাপ্ত ডাক্তাররা। ডাকা হয় সুচিত্রা কন্যা মুনমুন সেনকেও। তারপরই বেলা ১২ টা থেকে সুচিত্রা সেনকে নন-ইনভেসিভ ভেন্টিলেশনে রাখার সিদ্ধান্ত হয়। এইমুহুর্তে মাস্কের সাহায়্যে তাঁর অক্সিজেনের মাত্র বাড়ানো হচ্ছে।

পরে মহানায়িকার শারীরিক অবস্থার অবনতির কথা জানিয়ে ডা: সুব্রত মৈত্র সাংবাদিকদের জানান সুচিত্রা সেনের চিকিৎসার দায়িত্বে থাকা নিয়মিত চিকিৎসকরা ছাড়াও এদিন আরও দুইজন বক্ষ(চেস্ট) বিশারদকে ডাকা হয়। ডাকা হয় সুচিত্রা কন্যা মুনমুন সেনকেও। এরপরই চিকিৎসক ও পরিবারের লোকের সঙ্গে আলোচনা করে মহানায়িকার রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা বাড়ানোর জন্য ‘নন-ইনভেসিভ’ ভেন্টিলেশনে রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। যদিও মহানায়িকার হৃদস্পন্দনের গতি, রক্তচাপ, ইউরিন প্রেশার অপরিবর্তিত আছে বলে জানান ডা: মৈত্র। তাঁর বয়স ও রোগ পরিমাপ করে অ্যান্টিবায়োটিক পরিবর্তন করা হচ্ছে বলেও তিনি জানান।

উল্লেখ্য ফুসফুসের সংক্রমণ নিয়ে গত ২৪ ডিসেম্বর মধ্য কলকাতার একটি বেসরকারি নার্সিং হোম (বেল ভিউ)-এ ভর্তি হন সুচিত্রা সেন। মাঝে কয়েকদিন ভাল থাকলেও হৃদস্পন্দনের গতি ও শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় গত রবিবার রাতে ক্রিটিক্যাল কেয়ার ইউনিট(সিসিইউ)-তে স্থানান্তরিত করা হয় ৮২ বছর বয়স্কা এই বাংলা ছবির এই জীবন্ত কিংবদন্তীকে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

 'আউটসোর্সিং ও ভালোবাসার গল্প'

 ‘আউটসোর্সিং ও ভালোবাসার গল্প’

স্টাফ রিপোর্টার :: মাহাবুব এক স্বাধীনচেতা যুবক। নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারে বেড়ে ওঠা ছেলেটি ...