শৈলকুপার ইউএনও নির্বাচনের অর্থ লোপাট করে লাখপতি

ঝিনাইদহ থেকে, আহমেদ নাসিম আনসারী: ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলা নির্বাচনে সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ আলী প্রিন্স পরিবহন ভাড়া ৮০ হাজার টাকা পকেটস্থ করার পর প্রিজাইডিং অফিসারদের প্রশিক্ষনের টাকাও আত্মসাৎ করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

একজন প্রিজাইডিং অফিসার জানান, শৈলকুপার ১১২টি কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার, সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার ও রিটার্নিং অফিসারদের প্রশিক্ষনের বেশির ভাগ টাকা তিনি আত্মসাৎ করেছেন। অভিযোগ পাওয়া গেছে হাই কোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী নির্বাচনী কাজে নছিমন, করিমন, আলমসাধু, আলগামন ও যান্ত্রিক ত্রুটিপূর্ন কোন যানবাহন ব্যবহারের নিয়ম না থাকলেও মহা দুর্নীবিাজ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ আলী প্রিন্স এ সব যানবাহন ব্যাবহার করেন এবং চালকদের টাকা দেওয়ার সময় অবৈধ যানবাহনের কথা তুলে হুমকী দেন। বেশিরভাগ ভোট কেন্দ্রে ২টি করে যানবাহন চালককে দেওয়ার কথা দুই হাজার টাকা করে। কিন্তু তাদেরকে ৫/৭শ টাকা করে দিয়েছেন।

শৈলকুপা উপজেলার আউশিয়া গ্রামের আলমসাধু চালক ঠান্ডু মিয় অভিযোগ করেন, বিভিন্ন কর্মকর্তাগনের মাধ্যমে ইউএনও তাদের নায্য পাওনা দেন নি। একই অভিযোগ হাজামপাড়া’র জামাল, দুধসর গ্রামের কাজেম, ঝাউয়িা গ্রামের রতনসহ অনেক ইউনিয়নের নছিমন চালকদের।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ আলী প্রিন্স হাজার হাজার টাকা আত্মসাৎ লোপাট করেন। গাড়ী চালকের টাকা কম দেওয়ার জবাবে ইউএনও মুহাম্মদ আলী প্রিন্স বলেন, ৩’শ টাকা ভ্যাট বাদ দিয়ে বাকী ১৭’শ টাকা দেয়ার কথা কিন্তু ভোটের ফলাফল নিয়ে ব্যস্ত ছিলাম বলে পুরো বিষয়টি জানা নেই।

আহমেদ নাসিম আনসারী/

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে বাংলাদেশি ট্যাক্সিচালক খুন

বাংলা প্রেস ::যুক্তরাষ্ট্রের কানেকটিকাট অঙ্গরাজ্যে স্ট্যামফোর্ডে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে খুন হয়েছে বাংলাদেশি এক ...