ব্রেকিং নিউজ

শান্তিপূর্ণভাবে নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত: ডেমক্রেসিওয়াচ

শান্তিপূর্ণভাবে নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত: ডেমক্রেসিওয়াচষ্টাফ রিপোর্টার :: বেসরকারী নির্বাচন পর্যবেক্ষণ সংস্থা ডেমক্রেসিওয়াচ আজ ২২ ডিসেম্বর এ অনুষ্ঠিত নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করে। দিন শেষে সংস্থাটি জানায় নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন শান্তিপূর্ণভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। ডেমক্রেসিওয়াচের পর্যবেক্ষণ মতে নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ভোট প্রদানের আনুমানিক হার ছিল শতকরা ৬৫ ভাগ। ডেমক্রেসিওয়াচের ১টি ভ্রাম্যমান দল মোট ১৭৪টি কেন্দ্রের মধ্যে ২০টি কেন্দ্র পর্যবেক্ষণ করেছে।

ভোটার উপস্থিতি : দিকে বেলা বাড়ার সাথে সাথে ভোটারের উপস্থিতি বৃদ্ধি পেতে থাকে তার মধ্যে নারী ও সংখ্যালঘু ভোটারের উপস্থিতি ছিল লক্ষ্যনীয় ।

ভোট ব্যবস্থাপনা : তোলারাম সরকারী কলেজ নারী ও পুরুষ কেন্দ্র, বিবি মরিয়ম বালিকা বিদ্যালয় নারী ও পুরুষ কেন্দ্র, খানপুর সরকারী বালক বালিকা বিদ্যালয় কেন্দ্র নারী ও পুরুষ কেন্দ্র, নারায়নগঞ্জ গার্লস স্কুল এন্ড কলেজ নারী ও পুরুষ কেন্দ্র, জয়গোবিন্দ হাই স্কুল নারী ও পুরুষ কেন্দ্র, কেন্দ্রেগুলোতে গোপন কক্ষে পর্যাপ্ত আলোর ব্যবস্থা না থাকা কে ভোট প্রদানের সঠিক ব্যবস্থাপনার অভাব বলে গণ্য করা যায়। এছাড়া নারায়নগঞ্জ মহিলা কলেজ, তোলারাম সরকারী কলেজ, জয়গোবিন্দ হাই স্কুল নারী কেন্দ্র দোতলায় হওয়ায় বয়স্ক নারী ভোটারদের ভোট প্রদান করতে অনেক সমস্যায় পড়েন। আবার নারায়নগঞ্জ ক্লাবের নীচ তলায় মাঝারী টাইপ ১টি কক্ষে ৮টি বুথ করায় ভোটারদের ভোট প্রদানে অনেক সমস্যা হয়। বয়স্ক ভোটার ও শারিরিকভাবে অক্ষম ব্যক্তিদের ভোট প্রদানে বিশেষ কোন ব্যবস্থা ছিল না।

 নির্বাচনী উপরণ পোলিং অফিসারদের প্রশিক্ষণ : পর্যবেক্ষণকৃত ২০টি কেন্দ্রের নির্বাচনী উপকরণ ছিলো পর্যাপ্ত। তবে অমোচনীয় কালির গুনগত মান নিয়ে অনেক ভোটারা প্রশ্ন তোলেন। ভোটরা ও পোলিং অফিসাদেরকে প্রশ্ন করা হলে তারা বলেন অমোচনীয় কালি শুকিয়ে যাওয়ার ফলে ভোটারদের নখে কলির দাগ বসানো যায়নি। প্রিসাইডিং ও পোলিং অফিসারদেরকে প্রশিক্ষণ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তারা বলেন, এক দিনের প্রশিক্ষণ নতুন অফিসারদের জন্য যথেষ্ট নয়। তবে পর্যবেক্ষণকৃত ভোটকেন্দ্রে নারী পোলিং ও সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে দেখা যায়।

আইন- শৃংখলা পরিস্থিতি : পর্যবেক্ষণকৃত সকল কেন্দ্রেই আইন-শৃংখলা পরিস্থিতি ছিলো ভালো ছিল। প্রতিটি কেন্দ্রেই পর্যাপ্ত সংখ্যক বিজিবি, পুলিশ, ব্যাটেলিয়ান আনসার ও ডিভিপিকে  দায়িত্বরত অবস্থায় দেখা গেছে। এছাড়াও র‌্যাব, পুলিশ ও ম্যাজিষ্ট্রেটদেরকে ভ্রাম্যমান অবস্থায় দায়িত্ব পালন করতে দেখা গেছে। নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ১৭৪টি কেন্দ্রের মধ্যে ১৩৭টি কেন্দ্রকে ঝুঁকিপূর্ণ বলে ঘোষণা করা হয়, তার মধ্যে দশটি কেন্দ্র পর্যবেক্ষণ করে।

 

 

 

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

স্বামী-স্ত্রীর বৈরিতায় যেসব ক্ষতি হচ্ছে সন্তানের

প্রত্যেক সংসারে টুকটাক মনোমালিন্য, ঝগড়া থাকেই। তবে মনে রাখবেন যত সমস্যায় থাকুক, ...