শনিবার কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের ক্লাশ উদ্বোধন

৫২ শিক্ষার্থীর অধ্যক্ষ সহ ১১ শিক্ষক নিয়ে সকল জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে শনিবার আনুষ্ঠানিকভাবে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের পরিচিতি অনুষ্ঠান ও ক্লাশ উদ্বোধন হচ্ছে। সকাল ১১টায় কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের অস্থায়ী কার্যালয় কুষ্টিয়া মেডিকেল এ্যাসিস্টেন্ড ট্রেনিং স্কুলের ২ নং গ্যালারি মিলনায়তনে প্রধান অতিথি হিসেবে এক অনাড়াম্বর অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাশ উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক কুষ্টিয়ার কৃতি সনত্মান মাহবুব-উল-আলম হানিফ। কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডাঃ ইফতেখার মাহমুদের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি থাকছেন কুষ্টিয়া জেলা পরিষদের প্রশাসক জাহিদ হোসেন জাফর, কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক বনমালী ভৌমিক, পুলিশ সুপার মফিজ উদ্দিন আহম্মেদ, সিভিল সার্জন ডাঃ তরুন কানিত্ম হালদার ও জেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক আজগর আলী প্রমুখ। এ উপলক্ষে ইতোমধ্যে ছাত্র-ছাত্রীদের ভর্তি ও আবাসনের সু-ব্যবস্থা সহ সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ কর্তৃপক্ষ। আপাতত কুষ্টিয়া মেডিকেল এ্যাসিস্টেন্ড ট্রেনিং স্কুলের আবাসিকে ছাত্ররা এবং কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল সংলগ্ন নার্স ট্রেনিং ইনস্টিটিউটের ছাত্রী নিবাসে থাকবে ছাত্রীরা। এ বছরের ৯ অক্টোবর রবিবার সকালে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের অস্থায়ী কার্যালয় কুষ্টিয়া ম্যাটস-এ অধ্যক্ষ হিসেবে ডাঃ ইফতেখার মাহমুদ দায়িত্বভার গ্রহনের মধ্য দিয়ে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের কার্যক্রম শুরু হয়। কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ (কুমেক) এবার নব-বর্ষের প্রথম সপ্তাহে নব-উদ্দ্যোমে প্রথম বর্ষে ৩১ জন ছাত্রী এবং ২১ জন ছাত্র নিয়ে ১ম বর্ষের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করতে যাচ্ছে। আজ উদ্বোধন হয়েই টানা ৮দিন ছুটি শেষে ১৫ জানুয়ারী পুরোপুরি ক্লাশ শুরু হবে। কেমন হবে নতুন মেডিকেল কলেজের শুরুটা। ক্লাশে ছাত্র-ছাত্রীদের মনোনিবেশ কিংবা অধ্যাবসয়। এসব ভাবনা ছাত্র-ছাত্রীদের পেয়ে বসলেও তাঁরা মানসিকভাবে সম্পূর্ণ প্রস্তুত যে কোন প্রতিকুলতাকে জয় করে সামনে এগিয়ে যেতে। কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডাঃ ইফতেখার মাহমুদ জানিয়েছেন, মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সব কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্য যাবতীয় ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। কলেজের শিক্ষার্থীদের সুষ্ঠু পাঠদান ও রোগীদের উন্নত সেবা দেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় লোকবল নিয়োগ হবে শীঘ্রই। ইতোমধ্যে প্রথম ও দ্বিতীয় বর্ষের জন্য ১৫ জন শিক্ষকের মধ্যে ১১ জন নিয়োগ দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে ৩ জন সহকারী অধ্যাপক ৩ জন এনাটোমি প্রভাষক ৩ জন ফিজোলজী ১ জন বায়োক্যামিষ্ট্রি ও ১ জন কমিউনিটি মেডিসিন নিয়োগ দেয়া হয়েছে। এছাড়া ৩য় ও ৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারী চূড়ান্ত নিয়োগের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। ফিজোলজী বিভাগে প্রভাষক আছে কিন্তু সহকারী অধ্যাপক নাই। পর্যায়ক্রমে এসব সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের পদক্ষেপ নেয়া হবে। ম্যাটস ও কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সহযোগিতায় কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে। কুষ্টিয়া মেডিকেল এ্যাসিস্টেন্ড ট্রেনিং স্কুলের নিচ তলায় অফিস ও ২নং গ্যালারিতে শ্রেণীকক্ষ করা হয়েছে। প্রতিটি বিভাগে এক থেকে তিনটি ইউনিট থাকবে। প্রতিটি ইউনিটে বিষয়ভিত্তিক বিভাগ অনুযায়ী কনসালটেন্ট বা অধ্যাপকের মধ্যে যিনি সিনিয়র তিনি ইউনিট প্রধানের দায়িত্ব পালন করবেন। কনসালটেন্টরা ক্লিনিক্যাল শিক্ষক হিসেবে কাজ করবেন। শহরতলির লাহিনী বটতলায় ২৫ একর জমির ওপর নির্মিত হবে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের ৫শ’ শয্যার হাসপাতাল এবং একাডেমিক ও প্রশাসনিক ভবন। স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় দু’একের মধ্যেই কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের প্রকল্প পরিচালক নিয়োগ দিবেন। তিনি কলেজের অবকাঠামোর নকশা স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে চূড়ান্ত করে স্থাপত্য বিভাগে প্রেরণ করবেন।

ইউনাইটেড নিউজ ২৪ ডট কম/কাঞ্চন কুমার/কুষ্টিয়া

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

১০ ডিসেম্বরের মধ্যে সব পরীক্ষা শেষ করতে ইসির নির্দেশ

স্টাফ রিপোর্টার :: আগামী ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে সব পরীক্ষা শেষ করতে শিক্ষা ...