লালমনিরহাটে কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষনের দায়ে শিক্ষকের যাবজ্জীবন

লালমনিরহাটে কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষনের দায়ে শিক্ষকের যাবজ্জীবনআসাদুজ্জামান সাজু, লালমনিরহাট প্রতিনিধি :: কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষনের দায়ে লালমনিরহাটের পাটগ্রাম সরকারী কলেজের শিক্ষক আব্দুল মোতালেব এরশাদের যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ৬ মাস সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত।

সোমবার বিকেলে লালমনিরহাট জেলা জজ এবং নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের বিচারক রেজা মোহাম্মদ আলমগীর হাসান এ আদেশ দেন। সাজাপ্রাপ্ত আব্দুল মোতালেব এরশাদ জেলার হাতীবান্ধা উপজেলার পশ্চিম বেজগ্রাম এলাকার আব্দুস সাত্তারের ছেলে। তিনি পাটগ্রাম সরকারী কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের শিক্ষক হিসাবে কর্মরত রয়েছেন।

মামলার বিবরনে জানা গেছে, ওই কলেজ শিক্ষক আব্দুল মোতালেব এরশাদ রাজশাহী বিশ্ব বিদ্যালয়ে পড়ার সময় তার প্রতিবেশী এক কলেজ ছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এরই জের ধরে ছুটিতে বাড়ি এসে বিয়ের প্রলোভনে গত ২০১৪ সালের ২ আগষ্ট মোতালেব গোপনে মেয়েটির ঘরে প্রবেশ করে ধর্ষন করে। বিষয়টি বাড়ির লোকজন বুঝতে পেয়ে স্থানীয় ভাবে শ্যালিস বৈঠকের আয়োজন করে।

কিন্তু স্থানীয় বৈঠকের বিয়ের সিদ্ধান্ত অমান্য করে মোতালেব। এ ঘটনায় কলেজ ছাত্রীর বাবা বাদি হয়ে ২০১৪ সালের ৮ আগষ্ট হাতীবান্ধা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। হাতীবান্ধা থানার তৎকালীন উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবুল কালাম আজাদ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে অভিযুক্ত মোতালেবের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগ পত্র দাখিল করেন।

গত সোমবার দুপুরে আসামীর উপস্থিতিতে এ মামলায় আদালত ধর্ষক মোতালেবকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদয়ে আরো ৬ মাসের সশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।

লালমনিরহাট জজ আদালতের সরকারী কৌসুলী (পিপি) অ্যাডভোকেট আকমল হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বাদি এ মামলায় ন্যায় বিচার পেয়েছেন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

saf

নারীকে সম্মানিত স্থানে প্রতিষ্ঠিত করতে কাজ করছে বর্তমান সরকার: চুমকি

স্টাফ রিপোর্টার :: মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি ...