মাসিক স্বাস্থ্যবিধি ব্যবস্থাপনায় বাজেট বরাদ্দ প্রয়োজন

মাসিক স্বাস্থ্যবিধি ব্যবস্থাপনায় বাজেট বরাদ্দ প্রয়োজন

স্টাফ রিপোর্টার :: টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে পানি, স্যানিটেশন ও হাইজিন ব্যবস্থার উন্নয়নের জন্য সরকারের জারীকৃত পরিপত্র বাস্তবায়নে সংশ্লিষ্ট স্কুলগুলোতে এবং পরিবারেও মাসিক স্বাস্থ্যবিধি ব্যবস্থাপনায় বাজেট বরাদ্দ প্রয়োজন। পাশাপাশি এ বিষয়ে ব্যাপক সচেতনতার প্রয়োজন।

সোমবার (২৩ জুলাই) বিকালে রাজধানীর বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের সম্মেলন কক্ষে গোলটেবিল আলোচনা সভায় এ দাবী জানানো হয়। বেসরকারি সংস্থা ডর্‌প ও মেনুস্ট্রয়াল হেল্‌থ ম্যানেজমেন্ট-এমএইচএম প্লাফর্ম ‘স্কুল পর্যায়ে মাসিক স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনায় পানি, স্যানিটেশন ও হাইজিন খাতে বাজেট বরাদ্দকরণের গুরুত্ব ও করণীয়’শীর্ষক এ আলোচনা সভার আয়োজন করে।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য নূরজাহান বেগম মুক্তা, দৈনিক ইত্তেফাকের সম্পাদক তাসমিমা হোসেন, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর পরিচালক (মাধ্যমিক) প্রফেসর ড. মোঃ আবদুল মান্নান। সভাপতিত্ব করেন ডরপ এর চেয়ারম্যান মোঃ আজহার আলী তালুকদার।

সিমাভী ওয়াই প্রোগ্রামের কান্ট্রি কো-অর্ডিনেটর অলোক মজুমদারের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, গুসি আন্তর্জাতিক শান্তি পুরস্কার বিজয়ী ও ডর্‌প প্রতিষ্ঠাতা এএইচএম নোমান, ঋতু প্রকল্পের প্রকল্প ব্যবস্থাপক মাহবুবা কুমকুম, নেত্রকোণা সদর উপজেলার হাজী ফয়েজ উদ্দিন আকন্দ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আজহারুল হক, কৃষ্ণগোবিন্দ উচ্চ বিদ্যালয়ের ঋতু স্টুডেন্ট ফোরামের সম্পাদক খাদিজা আক্তার প্রমুখ। আলোচনা সভায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ডরপ-এর গবেষণা পরিচালক মোহাম্মদ যোবায়ের হাসান।

অনুষ্ঠানে অর্থ প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান বলেন, এনজিওদের কাজের প্রতি সরকারের আস্থা আছে। তারা বিভিন্ন ধরনের ভালো কাজ করছে। মাতৃত্বকালীন ভাতা, স্বপ্ন প্যাকেজ কার্যক্রম ডরপ এর খুব ভালো উদ্যোগ। স্কুলে ব্যবহার সচেতনতার অভাবে টয়লেটগুলো অকেজো হয়ে যাচ্ছে। এলাকার চাহিদা অনুযায়ি বাজেট বরাদ্দের বিষয়টি আমরা বিবেচনা করছি।

সংসদ সদস্য নূরজাহান বেগম মুক্তা বলেন, আমরা এসডিজি ভালো ভাবে অর্জন করতে পেরেছি। এসডিজিও ভালো ভাবে করতে হবে। নারীকে অর্থনৈতিকভাবে স্বাভলম্বি হয়ে এগিয়ে যেতে হবে। শহর ও গ্রামে নিরাপদ পানির সর্বরাহ বাড়াতে হবে। আগামী বাজেটে পানি ও স্যানিটেশন খাতকে আলাদা খাত হিসেবে চিহ্নিত করার করার জন্য তিনি প্রধান অতিথির কাজে দাবী জানান।

ইত্তেফাকের সম্পাদক তাসমিমা হোসেন বলেন, মাসিক স্বাস্থ্য ব্যাবস্থাপনার বিষয়টি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে ধারণা দিতে হবে। স্কুলগুলোতে জীবন সম্পৃক্ত শিক্ষা দিতে হবে। স্কুলগুলোর সামগ্রীক উন্নয়নে স্থানীয় সরকারকে আরো সচেতন হতে হবে। পাশাপাশি সবার মধ্যে এ বিষয়ে সচেতনতা তৈরী করতে হবে।

DORP Program Photoঅনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি দেশে প্রথমবারেরমত ডরপ কর্তৃক প্রকাশিত বাজেট ডায়েরী ২০১৮-১৯ এর মোড়ক উন্মোচন করেন এবং তাসমিমা হোসেন দৈনিক ইত্তেফাকের সম্পাদক হওয়ায় তার হাতে ডরপ এর পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা ও সম্মাননা ক্রেষ্ট তুলে দেয়া হয়।

উল্লেখ্য, ডরপ ২০১৬ সালের জুলাই মাস থেকে নেত্রকোণা জেলার ৮টি উপজেলায় স্কুল পর্যায়ে মাসিক বা ঋতুকালীন স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনার বিষয়ে  ‘ঋতু’প্রকল্পের বাস্তবায়ন করছে। প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে ৮টি উপজেলায় নির্বাচিত ৮৯টি মাধ্যমিক স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণীর প্রায় ১৭ হাজার ছাত্রীর পানি, স্যানিটেশন এবং হাইজিন অধিকার নিশ্চিত হবে পাশাপাশি স্কুলগামী ছাত্রীদের সঠিক স্বাস্থ্য্যবিধি ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন তথা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে টয়লেট ও স্যানিটেশন ব্যবস্থার উন্নয়নের জন্য সরকারের জারীকৃত পরিপত্র ২০১৫ বাস্তবায়নে সহায়ক ভূমিকা রাখবে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

বাংলাদেশের উন্নয়নে ভারতের সহযোগিতা চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

ষ্টাফ রিপোর্টার ::  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের উন্নয়নে ভারতের অব্যাহত সাহায্য এবং ...