বড়দিনে নারীর সাজ

ঢাকা: বড়দিন মানে এক সার্বজনীন আনন্দ। তা তো সকলেরই জানা। প্রতি বছর ২৫ ডিসেম্বর বড়দিন উদযাপিত হয়। দিনটিকে ঘিরে  সময়ের সঙ্গে সঙ্গে যোগ হয়েছে নতুন সব ভাবনা। পোশাকে, সাজসজ্জায়, এমনকি খাবারে বা ভ্রমণে যোগ  হয়েছে নতুনত্ব। বিভিন্ন জনের সেই নতুন ভাবনা এবং এবারের বাজার পরিস্থিতি সম্পর্কে জানার চেষ্টা করেছেন লিনা দিলরুবা শারমিন।

বড়দিনের ভাবনা :
এবারের বড়দিনে বিভিন্ন পেশার কয়েকজনের সঙ্গে কথা বলেছে । তাদের কথার সুত্র ধরে অনুসন্ধান করা হয়েছে সাধারণের চাহিদা।

ক্রিস্টিনা মার্গারেট হার্নি :
বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ভিক্টোরিয়া-তে বিবিএ করছেন তিনি । পড়াশোনার পাশাপাশি  কাজ করছেন জুনিয়র এক্সিকিউটিভ হিসেবে গ্যাসমিন কোম্পানির সঙ্গে। এবারের বড়দিনে কি করছেন এমন প্রশ্নে বললেন, ক্রিসমাস আমার জন্য সব সময়ই খুব আনন্দের। কয়েকদিন আগে থেকেই চলে কেনাকাটা। এবারের  ক্রিসমাসের জন্য ‘নবরূপা’ থেকে একটি শাড়ি বেছে নিয়েছি। শাড়ির সঙ্গে গলায় লম্বা একটা মালা পরবো, কানে ছোট্ট একটা দুল আর হাতে চুড়ি। কাজল না দিলে কখনোই আমার সাজ পূর্ণ  হয়না। তাই চোখে মোটা করে কাজল আঁকার পাশাপাশি হালকা আইশ্যাডো আর ঠোঁটে গ্লস দিয়ে নেব। যেহেতু সেদিন বাসায় অনেক কাজ থাকে, তাই চুল খোলা না রেখে একটা বেণী করে নিতেই আমি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। এই  হবে  এবার আমার ক্রিসমাসের সাজ।

গ্রেস প্রিয়াঙ্কা :
ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটি-তে এমবিএ করছেন। ফ্যাশন সচেতন এই তরুণী বললেন, বড়দিনের সকালে আমরা বাড়ির সবাই এক সঙ্গে প্রার্থনা করতে যাই। তাই আমার কাছে বড়দিনটা শুরু হয় বেশ সকালে। এবার দেশের অস্থিতিশীলতার জন্য ঠিক মত কেনাকাটা করতে পারিনি। তবে শ্বশুরবাড়ি থেকে অনেক উপহার পেয়েছি। সাধারণত বড়দিনে বাড়িতেই অনেক কাজ থাকে। তাই আরামদায়ক কিছু পরি। সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত কাজের চাপ থাকে বলে  সালোয়ার কামিজ পরি। বিকেলে বাইরে গেলে শাড়ি পরি, সঙ্গে সোনা বা রূপার ছোট কোনো সেট, কাজল আর শাড়ির সঙ্গে মিলিয়ে লিপস্টিক দিই। আমি চুল খোলা রাখতেই বেশি পছন্দ করি। তাই এবার বড়দিনেও চুল খোলাই রাখবো। যেহেতু শীত পড়েছে বেশ, তাই শালও পরবো ।

ইভা রড্রিকস :
নর্থ বেঙ্গল মেডিকেল কলেজের পঞ্চম বর্ষের ছাত্রী ইভার একদিকে যেমন পড়ালেখার প্রচণ্ড চাপ, অন্যদিকে থাকতে হয় ঢাকার বাইরে। তিনি বলেন, “যেহেতু ঢাকার বাইরে থাকি তাই কেনাকাটাও করতে হয় এদিক থেকেই। তার ওপর এবার পড়ালেখার চাপের পাশাপাশি নানা সমস্যার কারণে তেমন কিছুই  কিনতে পারিনি। পরিচিত এক দোকান থেকে কিনে নিয়েছি সালোয়ার কামিজ আর তার সঙ্গে মিলিয়ে সোনালি রঙের জুতো। জামা আর ওড়নার কাপড়ে একটু লেস লাগিয়ে নিজের পছন্দ মত করে বানিয়ে নিয়েছি। ক্রিসমাসের দিন সকালে প্রার্থনার পর বাড়ি ফিরে মাকে সাহায্য করি। তারপর বন্ধুদের সঙ্গে ঘুরতে বের হই। তখন চুলটা পেছনে একটু আটকে আর হাল্কা একটু কাজল, গ্লস আর শ্যাডো দিয়েই আমার সাজ হয়ে যায়।”

ক্রিস্টিনা স্বর্ণা :
এবারের বড়দিন আমার জন্য খুব স্পেশাল। এটা আমার ছেলে জোনাথন গোমেজের প্রথম বড়দিন।  দিনটি তাই অন্যবারের থেকে আলাদা হবে বলে লালমাটিয়া কলেজের বিবিএ`র ছাত্রী ক্রিস্টিনা জানালেন । আমি এবারের বড়দিনে পরছি ‘নবরূপা’ থেকে কেনা সালোয়ার কামিজ। সঙ্গে রঙের শাল। কানে স্টোনের দুল, চোখে টানা কাজল, ঠোঁটে লিপস্টিক আর হাতে মিনা করা চুড়ি।

এ তো গেল এখনকার কয়েকজন তরুণীদের পোশাক আর সাজের খবর। এবার তাহলে আপনিও ঝটপট তৈরি হয়ে যান নিজের স্টাইলটি একেবারে আলাদা করে তুলে ধরার জন্য। এজন্য ঢাকার বাসিন্দারা যেসব স্থানে কেনাকাটা করতে পারেন সে বিষয়েও জানাচ্ছি কিছু তথ্য।

বড়দিনের কেনাকাটা:
এবারের বড়দিনের ফ্যাশন সম্পর্কে জানতে বাজার ঘুরে দেখা গেছে এবার সবার পছন্দের শীর্ষে উঠে এসেছে দেশি পোশাক। অনেকেই পছন্দের পোশাক কিনতে ঝুঁকছেন দেশি ফ্যাশন হাউজগুলোতে। পছন্দের কাপড়ের পাশাপাশি পাওয়া যাচ্ছে কাছাকাছি ধরণের শালও। এ ছাড়া অনেকেই রেডিমেড কাপড়ের পাশাপাশি কিনে নিচ্ছেন গজ কাপড়। ইয়ক, ব্লক, এমব্রডারি, আর লেসের সমন্বয়ে তৈরি করে নিচ্ছেন নিজের মনের মত পোশাক।
এখন যেহেতু জামার রঙে নয় বরং তার থেকে ভিন্ন রঙের ব্যাগ আর জুতো ব্যবহারের ফ্যাশন চলছে, তাই বেছে নিতে পারেন পোশাকের একদম বিপরীত রঙের ব্যাগ। এ ক্ষেত্রে কাপড়ের ব্যাগ ব্যবহারে আপনার ফ্যাশন হবে অনন্য। জুতো কেনার সময় ফ্যাশন না বরং মনযোগ দিন স্বচ্ছন্দবোধ আর পায়ের ধরণের ওপর। পা ভারী হলে হাল্কা কাজের জুতো ব্যবহার করুন। দুই ফিতার জুতোয় হাল্কা কাজের জুতো আনার পা-টিকে যেমন হাল্কা গড়নের দেখাবে তেমন হাল্কা গড়নের পায়ে ভারী বা চওড়া জুতো পরলে ভালো দেখাবে।

কোথায় পাবো :
দেশি ফ্যাশন হাউজগুলোর মধ্যে দেশি দশ ঘুরে দেখতে পারেন। এ ছাড়া উত্তরা, গুলশান, বনানী, বেইলি রোড, মিরপুর, ধানমণ্ডিসহ নানা জায়গায় ফ্যাশন হাউজ পাবেন। গজ কাপড় কিনতে পারেন নিউমার্কেট, গাউসিয়া, ধানমণ্ডিসহ বিভিন্ন বিপণীবিতানে। কাপড়ের ব্যাগ খুঁজতে ঘুরে দেখতে পারেন নিউ মার্কেট।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

এ সপ্তাহের ভাগ্য পূর্ভাবাস

সপ্তাহের রাশিফল করিগো বর্ণন। মনোযোগ সহকারে করহে শ্রবণ। মা-বাবা ,ভাই-বোন, আত্মীয় স্বজন, ...