বিশ্বে দূষণে মৃত্যুর শীর্ষে বাংলাদেশ

বায়ুদূষণডেস্ক নিউজ :: বিশ্বে দূষণের কারণে মৃত্যুর সংখ্যার শীর্ষে বাংলাদেশ। যুক্তরাজ্যের বিখ্যাত বিজ্ঞান সাময়িকী ল্যানসেটে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। খবর বিবিসির।

ল্যানসেটের তথ্যানুযায়ী, ২০১৫ সালে বিশ্বব্যাপী ৯০ লাখ মানুষ দূষণের শিকার হয়ে প্রাণ হারিয়েছে। এর মধ্যে বেশিরভাগ মৃত্যু ঘটেছে নিম্ন ও মধ্য আয়ের দেশগুলোতে, যেখানে ১ চতুর্থাংশ ক্ষেত্রে মৃত্যুর কারণ ছিল দূষণজনিত।

দূষণ থেকে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু ঘটেছে বাংলাদেশে। বাংলাদেশের পর তালিকায় আছে আফ্রিকার দেশ সোমালিয়া। দূষণজনিত মৃত্যুর হার সবচেয়ে কম ব্রুনাই ও সুইডেনে।

দূষণের ক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় প্রভাব ফেলেছে বায়ুদূষণ। দূষণজনিত মৃত্যুর দুই-তৃতীয়াংশের পেছনে রয়েছে বায়ুদূষণ।

দূষণজনিত মৃত্যুর বেশিরভাগ হয়েছে দূষণের কারণে সংক্রামক নয় এমন রোগে, যার মধ্যে রয়েছে- হৃদরোগ, স্ট্রোক ও ফুসফুসের ক্যান্সার।

গবেষণায় সম্পৃক্ত বিজ্ঞানী প্রফেসর ফিলিপ ল্যান্ড্রিগান তিবি বলেন, দূষণের চ্যালেঞ্জ পরিবেশগত চ্যালেঞ্জের থেকেও বেশি। দূষণ জনস্বাস্থ্যের নানা দিকের ওপর ব্যাপক প্রভাব ফেলছে।

বায়ুদূষণ যা সবচেয়ে বড় ঝুঁকি, তাতে অকালে প্রাণ হারাচ্ছে ৬৫ লাখ মানুষ। এর মধ্যে রয়েছে বাইরে থেকে আসা দূষণ যেমন- গ্যাস, বাতাসে দূষণ কণা এবং ঘরের ভেতর কাঠ ও কাঠকয়লা জ্বালানোর ধোঁয়া।

এর পর যেটি সবেচেয়ে বেশি ঝুঁকি সৃষ্টি করছে সেটি হল- পানি দূষণ, যার থেকে মৃত্যু হয়েছে ১৮ লাখ মানুষের। এ ছাড়া বিশ্বব্যাপী কর্মক্ষেত্রে দূষণ থেকে মারা গেছে ৮ লাখ মানুষ।

এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে অপেক্ষাকৃত দরিদ্র দেশগুলোতে। দূষণের একটি ব্যাপক প্রভাব পড়েছে দ্রুত অর্থনৈতিক উন্নয়ন ঘটছে যেসব দেশে যেমন- ভারত।

ভারত পঞ্চম স্থানে তালিকায় রয়েছে। চীনও রয়েছে এই তালিকায় ১৬তম স্থানে।

১৮৮ দেশে দূষণের জরিপ ও গবেষণা চালানো হয়েছে। গবেষণা যারা চালিয়েছেন তারা বলছেন, উন্নত দেশগুলোর মধ্যে যুক্তরাজ্যের স্থান ৫৫ নম্বরে। সেখানে ডিজেল থেকে দূষণের শিকার হচ্ছে বহু মানুষ।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

ব্যারিস্টার মঈনুল হোসেনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

স্টাফ রিপোর্টার :: জামালপুরে ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে ২০ হাজার কোটি টাকার ...