বিশ্বের সেরা রূপবতী রমনীদের দেশে

women- beauti italyইউনাইটেড নিউজ ডেস্ক :: বলা হয়, সৃষ্টিকর্তার সবচেয়ে সুন্দর সৃষ্টি নারী। তারা যেখানে যেভাবেই থাক না কেন, নারীরা সব সময়ই সুন্দর। তবে যারা পৃথিবীর সবচেয়ে সুন্দরী রমনীদের দেখা পেতে চান, তাদের জন্যে বেশ কয়েকটি দেশে যেতে বলেছেন বোদ্ধারা। দেখে নিন সুন্দরীতমারা কোন কোন দেশে থাকেন।

১. প্রথমেই বলতে হয় ইউক্রেনের কথা। দেশটি নারী সৌন্দর্যের জন্যে বিখ্যাত। ব্যবসার বড় অংশজুড়ে রয়েছে নারীদের চোখ ধাঁধানো রূপ। রাজধানী কিয়েভসহ অডেসা এবং ব্ল্যাক সি কোস্ট অঞ্চলে সুন্দরীদের বাস।

 ২. সুইডেন গোটা পৃথিবীর সুদর্শন পুরুষ এবং রূপবতী নারীদের দেশ। এখানে যে নারীর দিকেই তাকাবেন, তার রূপে মুগ্ধ হয়ে যাবেন। এরা সবাই লম্বা, তন্বী, প্রায় সবাই স্বর্ণকেশী এবং নীলনয়না। বেশির ভাগ নারীই উচ্চশিক্ষিত এবং বন্ধুসুলভ।

৩. থাইল্যান্ডের নারীরা শুধু আতিথেয়তার জন্যেই বিখ্যাত নন, তাদের লাজুক সৌন্দর্যে মুগ্ধ হয়ে যাবেন আপনি। শিশুসুলভ চেহারা লজ্জারাঙা হয়ে থাকে। এ দেশের নারীদের মাঝে কোমলতার এক অপূর্ব মিশেল দেখা যায়।

৪. বুলগেরিয়ার নারীরাও পিছিয়ে নেই। পূর্ব ইউরোপের ছোট এই দেশের নারীরা নাকি পরীর মতো দেখতে। দীর্ঘদেহ, ফর্সা ত্বক, ঘন কালো চুল আর ভাসা ভাসা চোখ প্রায় সব নারীর মাঝেই দেখা যায়।

৫. এই গ্রহের শ্রেষ্ঠ সুন্দরী রমনীদের দেশ বলে রাশিয়াকে জানেন সবাই। নীল চোখ, কালো কেশ, তন্বী দেহের সঙ্গে দারুণ বুদ্ধিমত্তা এ দেশের নারীর সৌন্দর্যে ভিন্নমাত্রা দিয়েছে। সাইবেরিয়া থেকে মস্কো, পুরো ৪ হাজার মাইল পথে একের পর এক রূপসী দেখে চোখ ধাঁধিয়ে যাবে আপনার।

৬. ডাচরা বিশ্বে আতিথেয়তার জন্যে বিখ্যাত হলেও নেদারল্যান্ডসের দীর্ঘ তনুর সুন্দরী নারীরা সবার নজরে পড়েন। এখানকার নারীরা সত্যিই দীর্ঘকায়। এদের গড় উচ্চতা ৫ ফুট ৮ ইঞ্চি। এরা অনেক বন্ধুসুলভ।

 ৭. আরবের সৌন্দর্য খুঁজে পাবেন লেবানিজ নারীদের মাঝে। তাদের তন্বী, বাঁকবহুল দেহের সৌন্দর্যে বিখ্যাত। এখানকার নারীদের চোখে জাদু আছে। চোখের দৃষ্টিতেই আটকে যাবেন আপনি।

৮. ভারতীয় নারীদের রূপে সবচেয়ে মিষ্টি আর রসালোভাব মিশে রয়েছে। আধুনিক নারীরাও ধর্ম ও সংস্কৃতিকে মায়ার সঙ্গে লালন করেন।

৯. ব্রাজিলের নারীদের সৌন্দর্যের বয়ান গোটা বিশ্ব জানে। দৈহিক বৈচিত্র্যে তাদের তুলনা চলে না। এখানকার নারীদের মাঝে অপূর্ব দৈহিক গড়নে মিশে রয়েছে খেলুড়ে বৈশিষ্ট্য।

১০. সুপার হট নারীদের আনাগোনা ইতালিজুড়ে। এরা তাদের ফ্যাশন ও স্টাইলে কল্পনাকেও ছাড়িয়ে যায়।

 ১১. ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চল আর স্লাভিক এলাকার জিনের মিশেল নজরকাড়া সুন্দরীদের জন্ম দিয়েছে সার্বিয়ায়। এ দেশের ৯৯ শতাংশ নারী সৌন্দর্যের ব্যাকরণ অনুযায়ী আদর্শ দেহের অধিকারী।

১২. ঝকঝকে দ্যুতিময় ত্বক আর সেক্সি লুক নিয়ে সুন্দরীদের দেশের তালিকায় নাম লিখিয়ে নিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া।

১৩. ইতালিয়ান ও ফ্রেঞ্চ নারী সৌন্দর্যের সেরা মিশেল ঘটেছে ক্রোয়েশিয়ার নারীদের মাঝে। ত্বকের সৌন্দর্য বর্ধনে মেকআপ নেওয়ার পর যে অবস্থা দাঁড়ায়, ক্রোয়েশিয়ার নারীদের গোটা দেহের ত্বক প্রকৃতিগতভাবেই তেমন।

১৪. কোকেন আর মাদক নিয়েই শুধু গরম নয় কলম্বিয়া, এখানকার রূপবতী নারীরা আরো বেশি তাপ ছড়ান। আধুনিকতা ও ঐতিহ্যের দ্বৈত মিশেলে এখানকার নারীদের ভিন্নমাত্রার রূপ দিয়েছে।

১৫. দক্ষিণ আমেরিকার মনোমুগ্ধকর সৈকতের দেশ আর্জেন্টিনা। এখানকার নারীদের পশ্চিম গোলার্ধের সবচেয়ে সুন্দরী নারী বলে অভিহিত করা হয়। এদের বন্ধুসুলভ ও রোমান্টিক মনোভাব রূপমাধুর্যকে বহুগুণ বাড়িয়ে দিয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

শিবগঞ্জের জঙ্গি আস্তানা

শিবগঞ্জের জঙ্গি আস্তানা থেকে চারজনের মরদেহ উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার :: চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবপুর উপজেলার শিবনগর গ্রামে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে একটি ...