Home / দেশ আমার / বগুড়ায় স্ত্রীর হাতে স্বামী ও স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন

বগুড়ায় স্ত্রীর হাতে স্বামী ও স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন

জবাই করেতানসেন আলম, বগুড়া প্রতিনিধি:: বগুড়ায় স্বামী কতৃক গৃহবধু ও স্ত্রী কতৃক স্বামীকে হত্যা করা হয়েছে। বুধবার সকালের দিকে বগুড়া শহরের চক ফরিদ প্রামাণিক পাড়ায় নববধূকে জবাই করে ও মঙ্গলবার বিকালে দুপচাঁচিয়া উপজেলায় স্ত্রী কতৃক স্বামীকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনা ঘটে।

এরমধ্যে নববধূকে জবাইয়ের পর আত্মহত্যার চেষ্টা করা স্বামীকে আহত অবস্থায় আটক করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেছে। আর স্বামী হত্যাকারি স্ত্রীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

ঘটনার প্রায় মাসখানেক আগে বগুড়া শহরের চক ফরিদ প্রামাণিক পাড়ার আব্দুর রশিদ প্রামাণিকের ছেলে সুজন প্রামাণিকের সঙ্গে ফাতেমা খাতুনের (২২) বিয়ে হয়। অন্যান্য দিনের মতো মঙ্গলবার রাতের খাবার খেয়ে তারা ঘুমিয়ে পড়েন। পরে বুধবার সকালে স্বামী সুজন প্রামাণিক ধারালো অস্ত্র দিয়ে স্ত্রী ফাতেমা খাতুনকে জবাই করে হত্যা করে। এরপর সুজন নিজেও নিজ গলায় ছুরিকাঘাত করে আত্নহত্যার চেষ্টা করে। এতে সুজন ব্যর্থহয়ে আহত অবস্থায় বিছানায় পড়েথাকা অবস্থায় পুলিশ তাকে আটক করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। আর স্ত্রী ফাতেমার লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদনে-র জন্য শজিমেক মর্গে পাঠানো হয়।

বগুড়া সদর থানার ওসি-তদন্ত আসলাম আলী এ খবর নিশ্চিত করে বলেন, কি কারনে সুজন এ কাজটি করেছে তা এখনও জানা যায়নি।

অপর ঘটনায় দুপচাঁচিয়ার পল্ল্লিতে গত মঙ্গলবার বিকালে স্ত্রী খাদিজা বেগমের বটির কোপে স্বামী শহিদুল ইসলাম (৪৫) নিহত হয়েছে। নিহত শহিদুল উপজেলার গোবিন্দপুর ইউনিয়নের আলতাফনগরের কোঁচপুকুরিয়া গ্রামের মকবুল হোসেনের ছেলে।

থানা সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কোঁচপুকুরিয়া গ্রামের শহিদুল ইসলামের সৌদি প্রবাসী স্ত্রী খাদিজা বেগম (৩৮) দুই সপ্তাহ আগে বাড়িতে আসে। এর প্রায় এক মাস আগে সে বিদেশ থেকে স্বামীকে টাকা পাঠায়। ঘটনার দিন বিকালে ওই টাকার হিসাব স্বামী শহিদুলের কাছে চাইলে শহিদুল তার হিসাব দিতে অপারগতা প্রকাশ করে।

এ নিয়ে স্বামী ও স্ত্রীর মধ্যে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে উত্তেজিত হয়ে স্ত্রী খাদিজা বেগম স্বামীকে ধারালো বটি দিয়ে তার শরীরে কোপ দেয়। এতে শহিদুল গুরুতর আহত হলে পরিবারের লোকজন তাকে বগুড়া শহিদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজে ভর্তি করায়।

সেখানে সন্ধ্যায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় শহিদুল মারা যায়। এ ঘটনায় নিহতের মা ছাইজান বিবি বাদী হয়ে মঙ্গলবার রাতে খাদিজা বেগমকে আসামী করে দুপচাঁচিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

দুপচাঁচিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) আঃ রাজ্জাক জানানা, নিহত শহিদুলের মা ছাইজান বিবি বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। মামলা গ্রহনের পরপরই রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে আসামী নিহত শহিদুলের স্ত্রী খাদিজা বেগমকে গ্রেপ্তার করেছে। সেই সঙ্গে হত্যার কাজে ব্যবহৃত ধারালো বটিটি জব্দ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে

শেবাচিমে চিকিৎসক ও রোগীর স্বজনদের মধ্যে মারামারি

সোহানুর রহমান :: বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (শেবাচিম) ইন্টার্ন চিকিৎসক ও রোগীদের ...