বগুড়ায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ২ ‘ডাকাত’ নিহত

তানসেন আলম।

বগুড়া: বগুড়ায় পুলিশের সাথে বন্দুক যুদ্ধে আন্ত:জেলা ডাকাতদলের দুই সদস্য নিহত হয়েছে। এসময় এস আই ফিরোজ ও কন্সটেবল আব্দুল বারী আহত হয়েছে।

পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ডাকাতদের ফেলে যাওয়া পিস্তল, ম্যাগজিন, গুলি ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করেছে। এছাড়াও ঘটনাস্থল থেকে আহত অবস্থায় ২ ডাকাতকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার রাতে কাহালু উপজেলার পাঁচপীর এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।

নিহত ২ ডাকাতের মধ্যে মোঃ দুলাল (৪৫) দুপচাঁচিয়া উপজেলার তালোড়া সাবলা  গ্রামের মৃত আঃ সাত্তারের পুত্র আর ইব্রাহীম আলী (৪৬) নন্দীগ্রাম উপজেলার থালতা মাঝগ্রামের মৃত বছির উদ্দিন আকন্দের পুত্র।

গ্রেফতারকৃত দুজন কাহালু উপজেলার দেওগ্রামের হামেদ আলীর পুত্র মোজাম ফকির (৪৫) ও নন্দীগ্রাম উপজেলার পাঠান গ্রামের মোহাম্মদ আলীর পুত্র ইয়াকুব আলী (৫০)।

বগুড়া কাহালূ থানার ওসি নূর আলম জানান, মঙ্গলবার রাত আনুমানিক ১টায় কাহালু  পাঁচপীর এলাকায় পাঁচপীর-তালোড়া সড়কের তালোড়া ব্রীজের পূর্ব দিকে ডাকাতির প্রস্ততি নেয়ার সময় সেখানে অভিযান চালানো হয়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ডাকাতদল পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। গুলিতে দুই পুলিশ আহত হয়। এসময় পুলিশও কয়েক রাউন্ড শর্টগানের পাল্টা গুলি ছুড়লে দুই ডাকাত আহত হয়।

আহত অবস্থায় তাদেরকে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করার পর ভোর রাতে ডাকাতরা মারা যায়।

নিহতরা আন্ত:জেলা ডাকাতদলের সদস্য। নিহত ডাকাতদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় এক ডজনেরও বেশি ডাকাতি ও ছিনতাইয়ের মামলা রয়েছে।

ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, একটি ম্যাগজিন, পাঁচ রাউন্ড গুলি ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করেছে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

বাংলাদেশের উন্নয়নে ভারতের সহযোগিতা চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

ষ্টাফ রিপোর্টার ::  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের উন্নয়নে ভারতের অব্যাহত সাহায্য এবং ...