ব্রেকিং নিউজ

ফ্যাশন দুনিয়ার গোপন কথা

ফ্যাশন দুনিয়ার গোপন কথাডেস্ক নিউজ :: ফ্যাশন সচেতন থাকতে সকলেই ভালোবাসেন৷ নিত্য নতুন ফ্যাশনের বাহার বাজারে৷ সেইচলতি হাওয়ার সঙ্গে  তাল মিলিয়ে চলেন প্রায় সকলেই৷ কিন্তু ফ্যাশন দুনিয়ার এমন কতগুলি গোপন কথা আছে যেগুলো জানলে আপনি নিজের ফ্যাশন নিয়ে দ্বিতীয়বার ভাবনা চিন্তা করবেন৷ আসুন দেখে নেওয়া যাক সেই ব্যাপারগুলি-

১.  ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিতে  কৃত্তিম তুলোর ব্যবহার ইপর্যাপ্ত৷ জেনেটিক্যালি মডিফায়েড কটন বা বিটি কটন দিয়েই এই বিপুল পরিমাণ উৎপাদনের চাকা সচল রাখতে হয়৷ তার সুবিধা যেমন আছে, তেমন অসুবিধেও প্রচুর৷ বিটি বেগুন ইত্যাদি নিয়ে একসময় যে বিতর্কের ঝড় উঠেছিল তা নিশ্চয়ই অনেকেরই মনে আছে৷ এখানেঅ অসুবিধা সেগুলি৷ পরিবেশ ব্যপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয় এই ধরনের তুলোতে৷

২. বেশীরভাগ পোশাক ফ্যাক্টরিতে শিশুশ্রমিকদের দিয়ে কাজ করানো হয়৷ আমাদের দেশও তার ব্যতিক্রম নয়৷দৈনিক অল্প মজুরীতে বাচ্চাদের দিয়ে কাজ করিয়ে মুনাফা লাভ করে ফ্যাক্টরিগুলো৷

৩. পোশাক এমনভাবেই বানানো হয়, যাতে তা বেশীদিন না টেকে৷ সুতো থেকে রঙের কারসাজি থাকে এমনই যে, কিছুদিনের পরই পোশাক ব্যবহারের অযোগ্য হয়ে পড়ে৷

৪. নিত্যনতুন স্টাইল আমদানি করে ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রি আসলে বোঝাতে চায় যে, আপনার ব্যবহৃত জিনিসটি আর ট্রেন্ডি নয়৷ আসলে পুরোটাই বাজারের তৈরি করা চাহিদা ও পারসেপশন৷

৫. অতি উৎপাদনের ফলে বর্জ্য পদার্তের পরিমাণও বেশি৷ সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, প্রায় ২ মিলিয়ন বর্জ্য পদার্থ তৈরি হয় এই ইন্ডাস্ট্রি থেকেই৷ প্রয়োজনমাফিক উৎপাদন হলে এই বিপুল পরিমাণ বর্জ্য থাকত না৷

৬. ডিসকাউন্ট বলে যা দেওয়া হয় তা আসলে কিছুই নয়৷ ফ্যাশন বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, দ্রুত উৎপাদনের ফলে পোশাকের গুণমান অনেকটাই কমেছে৷ সেই  পোশাকের উপরেই ব্র্যান্ডভ্যালুতে নির্ধারিত বেশী দামের উপর ডিসকাউন্ট থাকছে৷

সুতরাং প্রতিনিয়ত নিজেকে ফ্যাশন সচেতন রাখার তাগিদে উপরের কারণগুলিতেও পরোক্ষভাবে ইন্ধন দিয়ে চলেছেন আপনি৷ আর কে না জানে, ফ্যাশন মানে স্রেফ নানা রকমের পোশাই নয়, নিজেকে সঠিকভাবে ক্যারি করতে পারা, প্রেজেন্ট করতে পারাও৷

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

জানালার কাঁচ ভেদ করা রোদ কি ভিটামিন ডি দিতে পারে?

কে না চায়, সূর্যের নরম রোদ জানালার কাঁচ ভেদ করে আলতো করে ...