পুলিশের ক্রাইম রেসপন্স ইউনিটের (সিআরটি) যাত্রা শুরু

ক্রাইম রেসপন্স ইউনিটের (সিআরটি)

স্টাফ রিপোর্টার ::  জঙ্গিবাদ, মাদক-চোরাচালান প্রতিরোধসহ বিশেষ ধরনের অপরাধ দমন ও মোকাবেলায় সিলেটে পুলিশের বিশেষায়িত ইউনিট ক্রাইম রেসপন্স ইউনিটের (সিআরটি) যাত্রা শুরু হয়েছে।

সোয়াত-এর আদলে গঠন করা এ টিম মহড়ার মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা করে। এতে সুনির্দিষ্টভাবে জঙ্গিবাদসহ অপরাধ দমন করা সম্ভব হবে বলে আশা করছেন পুলিশ কর্মকর্তারা।

বর্তমানে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ ছাড়াও চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ ও রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশে বিশেষায়িত সিআরটি টিমের কার্যক্রম চলবে। এরই মধ্যে গত ১১ আগস্ট সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের স্থগিত হওয়া দুই ভোট কেন্দ্রের ভোট গ্রহণের দিনে সিআরটি সদস্যদের দায়িত্ব পালন করতে দেখা যায়।

বুধবার দুপুরে জেলা পুলিশ লাইন্স মাঠে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত সিআরটি টিমের সদস্যরা মহড়ায় অংশ নেন। এ সময় সিআরটি সদস্যরা জঙ্গিসহ বিভিন্ন অপরাধ দমনে তাদের প্রদর্শনী তুলে ধরেন। পরে পুলিশ লাইন্সের শামসুল হক মিলনায়তনে এক মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়। এতে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কমিশনার পরিতোষ ঘোষ, অতিরিক্ত উপ-কমিশনার ফয়সল মাহমুদ, অতিরিক্ত উপকমিশনার শাহরিয়ার আল মামুনসহ এসএমপি’র শীর্ষ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এ সময় সিলেট মহানগর পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কমিশনার পরিতোষ ঘোষ জানান, জঙ্গি, মাদক, সন্ত্রাস, চোরাচালান প্রতিরোধ করাই হচ্ছে এ টিমের কাজ। মোস্ট ওয়ান্টেড আসামি গ্রেপ্তারেও এই টিম কাজ করবে। তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের প্রশিক্ষকরা এই টিমকে প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন। আগামীতে আরো প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ২৪ সদস্যের সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের ‘সিআরটি’ টিম গত ২৪ জুন থেকে ২৬ জুলাই পর্যন্ত জর্ডানে পুলিশ ট্রেনিং কেন্দ্রে মাসব্যাপি প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। সেখানে অস্ত্র পরিচালনা, জঙ্গি দমন, মাদক, চোরাচালানি ও সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তার অভিযান বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের বিশেষায়িত টিম সোয়াতের আটজন প্রশিক্ষক তাদের প্রশিক্ষণ দেন।

জর্ডানে প্রশিক্ষণ শেষে দেশে ফেরার পর গত ৩০ জুলাই থেকে সিলেটে পুনরায় এই টিমের প্রশিক্ষণ শুরু হয়। আগামী ৩০ আগস্ট তাদের প্রশিক্ষণ শেষ হবে। যুক্তরাষ্ট্র সোয়াতের অপর দুই প্রশিক্ষক সিলেটে অবস্থান করে ২৪ সদস্যের এই টিমকে প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন। সিলেট জেলা পুলিশ লাইন্সে প্রতিদিন প্রশিক্ষণের পাশাপাশি আখালিয়াস্থ বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ বিজিবি’র ফায়ারিং রেঞ্জে ফায়ারিংয়ে তারা অংশ নেন।

এসএমপি সূত্র জানায়, প্রশিক্ষণের পাশাপাশি তাদের অত্যাধুনিক অস্ত্র সরবরাহ করবে যুক্তরাষ্ট্র।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

সেলুলয়েড পর্দায় শেখ হাসিনা

স্টাফ রিপোর্টার :: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সংগ্রামী জীবন নিয়ে প্রথমবারের মতো নির্মিত ...