পাবনার বিএনপির দু’গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া পাণ্টা ধাওয়া মঞ্চ ভাংচুর

বেগম খালেদা জিয়ার খুলনা অভিমুখে রোড মার্চের প্রথম পথসভা অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৬ নভেম্বর পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার দাশুরিয়ায় মোড়ে। আর এই প্রথম পথসভাকে কেন্দ্র করে বিবাদমান জেলা বিএনপির দু’গ্রুপ মুখো মুখি অবস্থানে রয়েছে। দু’গ্রুপই চেষ্ঠা চালিয়ে যাচ্ছে দলের চেয়ারপার্সনের সামনে শোডাউন দিতে। দফা দফায় প্রসত্মতি সভা করছে দু’গ্রুপের নেতা কর্মীরা। গত মঙ্গলবার শো ডাউন দেওয়াকে কেন্দ্র করে বিএনপির দু’গ্রুপের নেতা কর্মীদের মধ্যে দাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও মঞ্চ ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।

এদিকে গত রোববার বিরোধী দলীয় নেতা খালেদা জিয়ার নিরাপত্তা ও প্রতিরক্ষা বিষয়ক সমন্বয়কারী মেজর (অব:) ফজলে এলাহী আকবরের নেতৃত্বে চার সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল দাশুড়িয়ায় এসে পথসভাস্থল পরিদর্শন ও আয়োজন নিয়ে নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় করে গেছেন।

নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় শেষে মেজর (অব:) ফজলে এলাহী আকবর বলেন, আমরা আশা করছি দলীয় নেতাকর্মী ছাড়াও সর্বস্তরের মানুষের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহনের মধ্য দিয়ে প্রথম পথসভাটি শান্তিপূর্ণ ও সফল হবে এবং সবার সহযোগিতার মাধ্যমে বিএনপি’র চেয়ারপার্সনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা সম্ভব হবে।

ঈশ্বরদী উপজেলা বিএনপি সূত্র জানায়,পথসভা সফল করতে ঈশ্বরদী উপজেলা ও পৌর বিএনপির উদ্যোগে ৩০১ সদস্য বিশিষ্ট পথসভা বাস্তবায়ন কমিটি ও ১১টি উপ-কমিটি গঠন করা হয়েছে।

গত সোমবার থেকে পথসভার মঞ্চ তৈরির কাজ শুরু হয়েছে। এছাড়া শতাধিক তোরণ নির্মাণের প্রস্তুতি চলছে। এদিকে পথসভাকে কেন্দ্র করে পাবনা পৌরসভার মেয়র কামরুল হাসান মিন্টু ও ঈশ্বরদী পৌর মেয়র মকলেছুর রহমান বাবলুর নেতৃত্বে পথসভারস্থান দাশুড়িয়া মোড়ে গত মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭ টার দিকে মিছিল বের করলে একই সময় সাবেক পাবনা-৪ আসনের এমপি ও পাবনা জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি সিরাজুল ইসলাম সরদারের নেতৃত্বে পাল্টা একটি মিছিল বের করলে দু’গ্রুপের নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার এক পর্যায় সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। পথসভার জন্য তৈরি মঞ্চ ভাঙচুর করা হয়। খবর পেয়ে ঈশ্বরদী থানা পুলিশ এসে পরিসিত্মতি নিয়ন্ত্রনে আনেন।

পাবনা জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুল হাসান মিন্টু বলেন, দাশুড়িয়ায় যেখানে পথসভার স্থান নির্ধারণ করা হয়েছে সেখানে পথসভা করার মতো পরিস্থিতি নেই। তাই স্থান পরিবর্তনের দাবি জানানো হয়েছে।

ঈশ্বরদী পৌর বিএনপির একাংশের সভাপতি ও পৌর মেয়র মকলেছুর রহমান বাবলু বলেন, ‘আমরা বিএনপির দুঃসময়ের কাণ্ডারী হলেও ঈশ্বরদী বিএনপির নামধারীরা আমাদের কোনো কিছু না জানিয়েই বেগম খালেদা জিয়ার পথসভার আয়োজন করছে, আমাদের ডাকাও হয়নি। তাই আমরা আলাদাভাবে পথসভায় অবস্থান নেওয়ার প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছি।

সাবেক এমপি সিরাজুল ইসলাম সরদার বলেন, বেগম খালেদা জিয়ার পথসভায় যে কেউ মিছিল করতেই পারে। এখানে গ্রুপিংয়ের কিছু নেই।

ইউনাইটেড নিউজ ২৪ ডট কম/কলিট তালুকদার/পাবনা

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

৩২ ধারা বহাল রেখে ডিজিটাল নিরাপত্তা বিল পাস

ষ্টাফ রিপোর্টার :: সাংবাদিক ও মানবাধিকার সংগঠনসহ বিভিন্ন মহলের আপত্তি সত্ত্বেও বহুল ...